চল্লিশ বছর ধরে জ্বলছে আগুন! লোকে বলে, এটাই 'নরকের দ্বার'

চল্লিশ বছরের বেশি সময় ধরে এখানে আগুন নেভে না। 

Updated: Sep 8, 2018, 02:40 PM IST
চল্লিশ বছর ধরে জ্বলছে আগুন! লোকে বলে, এটাই 'নরকের দ্বার'

নিজস্ব প্রতিনিধি : ডিভাইন কমেডি-তে মহাকবি দান্তে নকাগ্নির কথা বলেছিলেন। স্বর্গ, নরক এসব অতিজাগতিক ব্যাপার স্যাপার নিয়ে বিতর্ক বাড়িয়ে লাভ নেই। কিন্তু এই পৃথিবীতেই এমন এক জায়গা রয়েছে যাকে লোকে ইতিমধ্যে নরকের দ্বার বলতে শুরু করেছে। চল্লিশ বছরের বেশি সময় ধরে এখানে আগুন নেভে না। সেই আগুন দাউ দাউ করে জ্বলছে বছরের পর বছর ধরে। 

আরও পড়ুন-  আকাশে আলো ঝলমলে যান! ভিনগ্রহীদের বলে সন্দেহ

তুর্কমেনিস্তানের কারাকুম মরুভূমির দেরওয়াজে গ্রামের কাছে অবস্থিত এই নরকের দ্বার। ২৩০ ফুট ব্যাস ও ৬৫ ফুট গভীর এক গর্ত। যাকে অনেকে 'শয়তানের সুইমিং পুল' বলেও ডাকে। ১৯৭১ থেকে জ্বলছে এই গর্তের আগুন। ১৯৭১ সালে কয়েকজন সোভিয়েত ভূতত্ত্ববিদ খনিজ তেলের সন্ধানে কারাকুমের মরু অঞ্চলে অভিযান চালান। কিছুদিনের মধ্যেই সেই অভিযাত্রীরা টের পান, তাঁরা ভূগর্ভস্থ গ্যাসের এক ভাণ্ডারের উপরে বসে রয়েছেন। সেই সময় তাঁরা কয়েক জায়গায় গর্ত খুঁড়ে ভূগর্ভে থাকা গ্যাসকে উন্মুক্ত করেন। সেই সব জায়গাগুলোতে আজও আগুন জ্বলে রয়েছে। 

 

সেই সময় ভূতাত্ত্বিকরা ভূপৃষ্ঠের একটা বড় অংশ উন্মুক্ত করে দেন। সেই গর্তই নরকের দ্বার নামে পরিচিত হচ্ছে। ১৯৭১ থেকে উন্মুক্ত হয়ে থাকা সেই গর্তে আগুন জ্বলছে। ভূগর্ভের গ্যাসের জন্যই জ্বলছে সেই আগুন। এই গর্ত ও তাতে জ্বলতে থাকা আগুন দেখার জন্য এখন সেখানে বিপুল সংখ্যক পর্যটক ভিড় করেন। ভয়ানক সেই গর্ত বিশ্বজুড়ে বিস্ময় ছড়াচ্ছে। 

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. You can find out more by clicking this link

Close