তিনটি অস্কার জিতে এগিয়ে পাইয়ের জীবঙ্গাথা

লাইফ অফ পাইয়ের অস্কার জয়

লাইফ অফ পাইয়ের অস্কার জয়পরিচালকের নমিনেশন পাননি বেন অ্যাফলেক, ক্যাথেরিন বিগেলো, কোয়েন্টিন ট্যারান্টিনো, টম হুপার। সেই নিয়ে বিতর্কের ঝড় উঠেছিল বিশ্ব জুড়ে। ব্রাত্য সেই বেন অ্যাফলেকের আরগোই পেল সেরা ছবির সম্মান। তবে ১১টা নমিনেশন ও সেরা পরিচালক (অ্যাং লি) সহ চারটি অস্কার পেয়ে হলিউডের ডলবি থিয়েটার মাতালো পিসিং পাই প্যাটেলের জীবনগাথাই। অভিনয় দক্ষতায় এর আগে দু'বার অস্কার পেয়েছেন। এবার চরিত্রের সঙ্গে একাত্ম হয়েছিল চেহারার মিল। ষোড়শ মার্কিন প্রেসিডেন্ট আব্রাহাম লিঙ্কনের চরিত্রে অনবদ্য অভিনয়ের জন্য, প্রত্যাশা মতোই, সেরা অভিনেতার পুরস্কার পেলেন ড্যানিয়ল ডে লিউস। তবে সবাইকে অবাক করে সেরা অভিনেত্রীর সম্মান জিতলেন জেনিফার লরেন্স। সিলভার লাইনিংস প্লেবুকের জন্য। প্রসঙ্গত, ২০০৪-এ মিলিয়ন ডলার বেবির পর এই প্রথম অস্কারে 'বিগ ফাইভে' নমিনেশন পায় সিলভার লাইনিংস প্লেবুক। তবে শেষ পর্যন্ত একটি অস্কারেই খুশি থাকতে হয়।

তবে সন্ধে শেষে চারটি ক্যাটেগোরিতে অস্কার পেয়ে বাজিমাত করল লাইফ অফ পাই। রিচার্ড পার্কার আর পাইয়ের ২২৭ দিন বেঁচে থাকার রূপককাহিনির দৃশ্যায়নের জন্য সিনেম্যাটোগ্র্যাফিতে অস্কার পেলেন ক্লদিও মিরান্ডা। ভিস্যুয়াল এফেক্টসের জন্য অস্কার পেলেন বিল ওয়েস্টেনহফার, গিলিয়ম রখরন, এরিক জ্যঁ দে বোয়া এবং ডোনাল্ড আর ইলিয়ট। অরিজিনাল স্কোরে অস্কার পেলেন মাইকেল ড্যানা। অল্পের জন্য হাতছাড়া হল সেরা গানে বোম্বে জয়শ্রীর অস্কার। জেমস বন্ডের স্কাইফলের জন্য এই পুরস্কার পেলেন অ্যাডেল।

লে মিসারবল-এর মূল উপন্যাসেই ফন্টিনের চরিত্র ছিল অল্প। গোটা ছবিতে ফন্টিনের ভূমিকায় অ্যানি হ্যাথওয়ের উপস্থিতি সব মিলিয়ে মিনিট দশেক। তার মধ্যেই একটুকরো অনবদ্য অভিনয় উপহার দিয়েছেন তিনি। বিশেষ করে বলতে হয় 'আই ড্রিমড অ্যা ড্রিম'-এর দৃশ্যায়ন। প্রসঙ্গত, গানটি গেয়েছেনও নায়িকা নিজেই।

ক্রিস্তোফ ওয়ালৎজের আত্মপ্রকাশ কোয়ান্টিন ট্যারান্টিনোর হাত ধরেই। ইনগ্লোরিয়াস বাস্টার্ডসের হাত ধরে। এই ছবিতে অভিনয়ের জন্য অস্কার, গোল্ডেন গ্লোব, কান ফিল্ম ফেস্টিভ্যালে সেরা সহ অভিনেতার সম্মান সহ প্রায় সব ক'টি প্রথম সারির পুরস্কার পান ক্রিস্তোফ। এবারও তার ব্যতিক্রম হল না। জ্যাঙ্গো আনচেইনডের জন্য গোল্ডেন গ্লোব থেকে অস্কার, সহ অভিনেতার প্রায় সব সেরাই তাঁর শোকেসে।

সেরা ছবিতে ছিটকে গেলেও সেরা বিদেশি ছবির পুরস্কার পেল আম্যুর। অ্যাডাপ্টেড স্ক্রিনপ্লের জন্য ক্রিস টেরিও (আরগো) এবং অরিজিনাল স্ক্রিনপ্লের জন্য কোয়ান্টিন ট্যারান্টিনো (জ্যাঙ্গো আনচেইনড) সেরার শিরোপা জিতলেন।

এবারের অস্কার সেরার তালিকা দেখতে ক্লিক করুন এখানে।

 রেড কার্পেট দেখতে ক্লিক করুন এখানে

অস্কারের বিশেষ পেজ দেখতে ক্লিক করুন এখানে






First Published: Monday, February 25, 2013, 13:21


comments powered by Disqus