মুখ ফসকেই ঢোঁক গিললেন খাদ্যমন্ত্রী

ভোল বদলের নতুন নজির গড়লেন খাদ্যমন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক। সকালে নিজের ঘোষিত অবস্থান থেকে সরলেও, সূয্যিমামা মাথার ওপর উঠতে না-উঠতেই পুরনো অবস্থানেই ফিরলেন তিনি।

Updated: May 26, 2012, 07:17 PM IST

ভোল বদলের নতুন নজির গড়লেন খাদ্যমন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক। সকালে নিজের ঘোষিত অবস্থান থেকে সরলেও, সূয্যিমামা মাথার ওপর উঠতে না-উঠতেই পুরনো অবস্থানেই ফিরলেন তিনি।
মাসখানেক আগে সিপিএমের বিরুদ্ধে জেহাদ ঘোষণা করে সিপিএম কর্মী-সমর্থকদের কার্যত সামাজিক ও রাজনৈতিক বয়কটের ডাক দিয়েছিলেন জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক। তাঁর এই বক্তব্যে রাজ্যজুড়ে সমালোচনার ঝড় উঠলেও অবস্থান বদল করেননি হাবরার বিধায়ক। শনিবার নিজের বিধানসভা কেন্দ্রে এক সভায় হঠাত্‍ই `বোধদয়` হয় তাঁর। বলেন, "উন্নয়নের ক্ষেত্রে দল দেখলে চলবে না। সিপিএম-তৃণমূল, সবাইকে সঙ্গে নিয়ে কাজ করতে হবে।"
খাদ্যমন্ত্রীর এই বক্তব্যের পরই শুরু হয় জল্পনা। তবে কি অবস্থান বদল করলেন উত্তর ২৪ পরগনার দোর্দণ্ডপ্রতাপ এই তৃণমূল নেতা? কিন্তু কিছুক্ষণের মধ্যেই জল্পনায় জল ঢালেন স্বয়ং জ্যোতিপ্রিয়বাবুই। হাবরার সভা শেষের কিছুক্ষণের মধ্যে বারাসাতে একটি সভায় নিজের পুরনো অবস্থানেই ফেরেন তিনি। বলেন, "সবাইকে সঙ্গে নিয়ে কাজ করতে হবে। তাই বলে সিপিএম নয়। সিপিএম ছাড়াও তো আরও দল আছে।" মঞ্চ থেকে ফের সিপিএম বয়কটের ডাক দেন তিনি। বলেন, "বিধানসভায় আমি সিপিএমের পাশে বসি না।"
কয়েক ঘণ্টার মধ্যে খাদ্যমন্ত্রীর এই অবস্থান বদলে প্রশ্ন উঠছে, দলীয় কর্মীদের তাতিয়ে রাখতেই কি প্রধান বিরোধী দলের বিরুদ্ধে চমরপন্থা বজায় রাখলেন রাজ্য ক্যাবিনেটের মন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক?