চৈত্রের শেষেই পুড়ছে দক্ষিণবঙ্গ

এপ্রিলের শুরুতেই চোখ রাঙাচ্ছে দহন। দক্ষিণবঙ্গের পাঁচ জেলায় তাপমাত্রার পারদ ইতিমধ্যেই চল্লিশ ডিগ্রি ছুঁয়েছে। বীরভূম, বাঁকুড়া, পুরুলিয়া, পশ্চিম মেদিনীপুর ও বর্ধমানের শিল্পাঞ্চলে তাপপ্রবাহের সতর্কতা জারি করেছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর। তাপমাত্রার লড়াইয়ে জেলার সঙ্গে পাল্লা দিচ্ছে কলকাতাও।

Updated: Apr 7, 2013, 05:21 PM IST

এপ্রিলের শুরুতেই চোখ রাঙাচ্ছে দহন। দক্ষিণবঙ্গের পাঁচ জেলায় তাপমাত্রার পারদ ইতিমধ্যেই চল্লিশ ডিগ্রি ছুঁয়েছে। বীরভূম, বাঁকুড়া, পুরুলিয়া, পশ্চিম মেদিনীপুর ও বর্ধমানের শিল্পাঞ্চলে তাপপ্রবাহের সতর্কতা জারি করেছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর। তাপমাত্রার লড়াইয়ে জেলার সঙ্গে পাল্লা দিচ্ছে কলকাতাও।
ওড়িশা, ছত্তিসগড় দিয়ে গরম হাওয়া ঢুকছে রাজ্যে। ফলে এপ্রিলের শুরুতেই লামাগছাড়া তাপমাত্রার পারদ। দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন জেলায় লাফিয়ে বাড়ছে তাপমাত্রা। ইতিমধ্যেই বাঁকুড়া, বীরভূম, পুরুলিয়া, পশ্চিম মেদিনীপুর ও বর্ধমানের শিল্পাঞ্চলে তাপমাত্রা কোথাও উনচল্লিশ কোথাও চল্লিশ ডিগ্রি ছুঁই ছুঁই। এই পরিস্থিতে আগামী আটচল্লিশ ঘন্টায় পাঁচজেলায় তাপপ্রবাহের সতর্কবার্তা জারি করল আলিপুর আবহাওয়া দফতর।
গরমের দাপটে দক্ষিণবঙ্গের বাকি জেলাগুলির সঙ্গে পাল্লা দিচ্ছে কলকাতাও। চৈত্রের শেষে  তাপমাত্রার পারদ চল্লিশের কোঠায়। রবিবার শহর কলকাতার তাপমাত্রা ছিল উনচল্লিশ ডিগ্রি। আগামী আটচল্লিশ ঘন্টায় দক্ষিণবঙ্গের সব জায়গায় তাপমাত্রার পারদ এক থেকে দু ডিগ্রি করে বাড়ার পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া দফতর। বাড়ছে গরম হাওয়ার দাপটও। ফলে ছুটির দিনেও নাজেহাল হতে হচ্ছে পথ চলতি মানুষকে। বসন্তের শেষে তাপমাত্রার এমন বেলাগাম গতি  ভাঁজ ফেলেছে আবহাওবিদদের কপালে।