ভেকট্রা`র উড়ান পরিষেবায় নিষেধাজ্ঞা কেন্দ্রের

Last Updated: Friday, May 4, 2012 - 15:39

টাট্রা ট্রাক কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত অনাবাসী ভারতীয় শিল্পপতি রবি ঋষির বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ করল কেন্দ্র। শুক্রবার ঋষি`র মালিকানাধীন সংস্থা `ভেকট্রা হেলিকপ লিমিটেড`-এর উড়ান-নিরাপত্তা সংক্রান্ত ছাড়পত্র বাতিল করা হয়েছে। প্রসঙ্গত, চেক প্রজাতন্ত্রের ট্রাক নির্মাতা সংস্থা টাট্রা`র সিংহভাগ শেয়ার রয়েছে ব্রিটেন-স্থিত কোম্পানি ভেকট্রার হাতে।
প্রতি বছর অমরনাথ যাত্রা ও বৈষ্ণদেবী দর্শনের সময় আর্থিকভাবে সম্পন্ন তীর্থযাত্রীদের জন্য হেলিকপ্টার পরিষেবার ব্যবস্থা করে `ভেকট্রা হেলিকপ লিমিটেড`। পাশাপাশি ভোটের সময় বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতাদের হেলিকপ্টার ভাড়া দেওয়াও সংস্থার অন্যতম ব্যবসা। দিল্লি আইআইটি`র প্রাক্তনী রবি ঋষির উড়ান কোম্পানির হাতে রয়েছে ৫০টি`রও বেশি হেলিকপ্টার রয়েছে। কেন্দ্রীয় সরকারের এই লাইসেন্স বাতিলের সিদ্ধান্তের ফলে `ভেকট্রা হেলিকপ লিমিটেড` ব্যবসায়িকভাবে যথেষ্ট ক্ষতিগ্রস্ত হবেন বলে মনে করছে ওয়াকিবহাল মহল। সেই সঙ্গে নিশ্চিতভাবেই বিড়ম্বনায় পড়বেন ভূস্বর্গের আকাশপথের পূণ্যার্থীরা।

গত ২৫ মার্চ জেনারেল ভি কে সিং একটি ইংরেজি দৈনিকে দেওয়া সাক্ষাত্‍কারে নাম না করে অবসরপ্রাপ্ত লেফটেন্যান্ট জেনারেল তেজেন্দ্র সিংয়ের বিরুদ্ধে সেনাবাহিনীর জন্য টাট্রা সংস্থার কাছ থেকে ৬০০টি নিম্নমানের গাড়ি কেনার বিনিময়ে তাঁকে ১৪ কোটি টাকা ঘুষের প্রস্তাব দেওয়ার অভিযোগ এনেছিলেন। এর পর সংশ্লিষ্ট সংস্থার তৈরি নিম্নমানের ট্রাকগুলি কেনা হয় বলেও জানিয়েছিলেন জেনারেল সিং। তিনি বলেন, বর্তমানে ভারতীয় ফৌজে টাট্রা`র এ জাতীয় ৭০০০ ট্রাক রয়েছে। মিডিয়ায় এই ঘটনা প্রচারিত হওয়ার পরই সিবিআই তদন্তের নির্দেশ দেন কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষামন্ত্রী এ কে অ্যান্টনি। ভেকট্রা`র চেয়ারম্যান রবি ঋষি এবং টাট্রা ট্রাকের যন্ত্রাংশ ভারতে এনে সেগুলি জুড়ে ভারতীয় ফৌজে ট্রাক সরবরাহকারী রাষ্ট্রায়ত্ত্ব সংস্থা `ভারত আর্থ মুভার্স লিমিটেড` (বিইএমএল)-এর কর্ণধার ভি নটরাজন এবং ভারতীয় প্রতিরক্ষা গোয়েন্দা বিভাগের প্রাক্তন প্রধান তেজেন্দ্র সিং`কে ইতিমধ্যেই এই মামলার জেরে জেরা করেছে সিবিআই।



First Published: Friday, May 4, 2012 - 15:39


comments powered by Disqus