সনিয়ার সঙ্গে দেখা করে বিরোধী জোটের ডাক নীতিশের

কংগ্রেস সভানেত্রী সনিয়া গান্ধীর সঙ্গে দেখা করলেন বিহারের মুখ্যমন্ত্রী তথা জনতা দল ইউনাইটেডের জাতীয় সভাপতি নীতিশ কুমার।  আর এই সাক্ষাতেই উঠে এল ধর্মনির্পেক্ষ বিরোধী দলগুলির 'মহা গাটবন্ধনের' মাধ্যমে মোদীর নেতৃত্বাধীন এনডিএ-কে রোখার পরিকল্পনা। সংবাদ সংস্থা পিটিআই সূত্রে খবর, এই আলোচনায় সনিয়াকে বিরোধিদের পক্ষ থেকে আসন্ন রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে প্রার্থী দেওয়ার জন্য অনুরোধও করেন নীতিশ। যদিও রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে প্রার্থী দেওয়ার বিষয় নিয়ে আলোচনার কথা স্বীকার করেননি জেডিইউ-এর মুখপাত্র কে সি ত্যাগি।

Updated: Apr 20, 2017, 09:27 PM IST
সনিয়ার সঙ্গে দেখা করে বিরোধী জোটের ডাক নীতিশের

ওয়েব ডেস্ক: কংগ্রেস সভানেত্রী সনিয়া গান্ধীর সঙ্গে দেখা করলেন বিহারের মুখ্যমন্ত্রী তথা জনতা দল ইউনাইটেডের জাতীয় সভাপতি নীতিশ কুমার।  আর এই সাক্ষাতেই উঠে এল ধর্মনির্পেক্ষ বিরোধী দলগুলির 'মহা গাটবন্ধনের' মাধ্যমে মোদীর নেতৃত্বাধীন এনডিএ-কে রোখার পরিকল্পনা। সংবাদ সংস্থা পিটিআই সূত্রে খবর, এই আলোচনায় সনিয়াকে বিরোধিদের পক্ষ থেকে আসন্ন রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে প্রার্থী দেওয়ার জন্য অনুরোধও করেন নীতিশ। যদিও রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে প্রার্থী দেওয়ার বিষয় নিয়ে আলোচনার কথা স্বীকার করেননি জেডিইউ-এর মুখপাত্র কে সি ত্যাগি।

প্রসঙ্গত, বিহারে গত বিধানসভা নির্বাচনে লালুপ্রসাদের আরজেডি ও কংগ্রেসের সঙ্গে মহাজোট তথা 'মহা গাঁটবন্ধন' গড়ে 'আগ্রাসী' গেরুয়া প্লাবনকে রুখে দিয়েছিলেন নীতিশ কুমার। এবার ঠিক একইভাবে জাতীয় রাজনীতিতে সেই 'মহা গাঁটবন্ধন'ই একমাত্র ভরসা বলে মনে করেন নীতিশ। আর সেক্ষেত্রে সবচেয়ে বড় বিরোধী দল হিসাবে কংগ্রেসকেই যে জোট গঠনের দায়িত্ব নিতে হবে সেকথাও সনিয়াকে স্পষ্ট ভাষায় জানিয়ে দেন জেডিইউ প্রধান। তবে শুধু কংগ্রেসই নয়, বাম নেতাদেরও এই জোট গঠনের জন্য এগিয়ে আসার প্রয়োজনের কথা বলেছেন নীতিশ।

উল্লেখ্য, সাম্প্রতিক অতীতে মোদীর সঙ্গে নীতিশের 'সুসম্পর্ক' অনেকবারই সামনে এসেছে। অনেকেই মনে করছিলেন এবার হয়ত রাজনৈতিকভাবেও 'কাছাকাছি' আসতে পারেন অতীতের দুই বন্ধু। কিন্তু জনসমক্ষে আসা মোদী-নীতিশ 'সুসম্পর্ক' যে আপাতত ব্যক্তিগত স্তরেই কেবল সীমাবদ্ধ, তা পরিষ্কার হয়ে গেল আজকের সনিয়া-নীতিশ আলোচনার মধ্যে দিয়েই। (আরও পড়ুন- 'সঙ্গে আছে দল', বাবরিকাণ্ডে আডবাণীকে বার্তা বিজেপি সভাপতি অমিত শাহের)