ভর সন্ধ্যায় বাউন্সারদের হাতে চরম হেনস্থার শিকার ব্রততী!

 ফাইনান্স কোম্পানির বাউন্সারের হাতে চরম হেনস্থার শিকার হলেন আবৃত্তিকার ব্রততী বন্দ্যোপাধ্যায় ও তার ভাই বিশ্বজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়।ঘটনায় শ্রীরামপুর থানায় অভিযোগ দায়ের হয়েছে।

Updated: Mar 13, 2018, 11:29 AM IST
ভর সন্ধ্যায় বাউন্সারদের হাতে চরম হেনস্থার শিকার ব্রততী!

নিজস্ব প্রতিবেদন:  ফাইনান্স কোম্পানির বাউন্সারের হাতে চরম হেনস্থার শিকার হলেন আবৃত্তিকার ব্রততী বন্দ্যোপাধ্যায় ও তার ভাই বিশ্বজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়।ঘটনায় শ্রীরামপুর থানায় অভিযোগ দায়ের হয়েছে।

আরও পড়ুন: ঘড়ি নিয়ে ঢুকতে পারছে না পরীক্ষার্থীরা, মাধ্যমিক পরীক্ষার প্রথম দিনই ছড়াল অসন্তোষ
চুঁচুড়া খাদিনা মোড়ে টেকনো পাবলিক স্কুলে আবৃত্তির কর্মশালায় যোগ দিতে যাচ্ছিলেন ব্রততী। দিল্লি রোডের দীর্ঘাঙ্গী মোড়ের কাছে তাঁদের গাড়ি আটকায় অন্য একটি গাড়ি। ৭-৮ জন বাউন্সার নেমে এসে ব্রততীর গাড়ির চালককে নামিয়ে নেন। কী ব্যাপার জিজ্ঞাসা করলে, নিজেদের ফাইন্যান্স কোম্পানির সদস্য বলে পরিচয় দেন। তাঁদের দাবি, ব্রততীর গাড়ির দু’মাসের মাসিক কিস্তি বাকি রয়েছে, তাই তাঁরা গাড়ি নিতে এসেছেন।

 আরও পড়ুন: ‘মমতার সব ও জানে, আমার সঙ্গে যোগাযোগ করেন অনেকেই’, শোভন প্রসঙ্গে কোন ইঙ্গিত মুকুলের?

ঘটনায় হতবাক শিল্পী বলেন, যা করার আইন মোতাবেক করতে। কিন্তু কথা না শুনে চালককে আটকে রেখে গাড়ি নিয়ে নেওয়া হয়। ব্রততীকে চুঁচুড়ায় পৌঁছে দিয়ে গাড়ি ভদ্রেশ্বরে রেখে দেন ফাইন্যান্স সংস্থার সদস্যরা। শ্রীরামপুরের সাংসদ কল্যাণ বন্দোপাধ্যায়কে জানান ব্রততী। সাংসদ পুলিশকে বিষয়টি দেখতে বলেন।

আরও পড়ুন: মাধ্যমিক পরীক্ষার্থীদেরও তাড়া করে ফিরছে ‘তার’ আতঙ্ক

ভদ্রেশ্বর থানা এলাকা থেকে পুলিশ গাড়িটিকে শ্রীরামপুর থানায় নিয়ে আসে। জানা গেছে, গাড়িটির ঋণের  দু’মাসের কিস্তি বাকি রয়েছে।  সেই গাড়িতে চেপেই হেনস্থা হতে হল বাচিক শিল্পীকে।