স্কুলের ছাত্রদের ফেসবুকে বাঁদর বলায় শাস্তির কোপে শিক্ষিকা

কিন্তু এমন মন্তব্যের জন্য শিক্ষক বা শিক্ষিকার শাস্তি হোক এমনটা কি কেউ কখনও চেয়েছে? কেউ চান বা না চান। এমন ঘটনা ঘটেছে। ফেসবুক পোস্টে ছাত্রদের বাঁদর বলে উল্লেখ করে শাস্তির খাঁড়া নেমে এল এক শিক্ষিকার উপর। তাঁকে ছুটিতে পাঠানো হয়েছে।

Updated: Jan 7, 2019, 12:50 PM IST
স্কুলের ছাত্রদের ফেসবুকে বাঁদর বলায় শাস্তির কোপে শিক্ষিকা

নিজস্ব প্রতিবেদন: বাঁদর কোথাকার! কিংবা হনুমান আজ পড়ে এসেছিস! স্কুলে শিক্ষক-শিক্ষিকার কাছে এমন ভাবে বকা খায়নি, এমন ছাত্র বোধহয় বিরল। শিক্ষক বা শিক্ষিকার মুখে এমন কথা শুনে হয়তো অনেকের খারাপ লাগে।

আরও পড়ুন: সন্তানের জন্ম দিলেন ১৪ বছর ধরে কোমায় থাকা মহিলা, বাবার খোঁজে তদন্ত শুরু পুলিসের

কিন্তু এমন মন্তব্যের জন্য শিক্ষক বা শিক্ষিকার শাস্তি হোক এমনটা কি কেউ কখনও চেয়েছে? কেউ চান বা না চান। এমন ঘটনা ঘটেছে। ফেসবুক পোস্টে ছাত্রদের বাঁদর বলে উল্লেখ করে শাস্তির খাঁড়া নেমে এল এক শিক্ষিকার উপর। তাঁকে ছুটিতে পাঠানো হয়েছে।

তবে এমন ঘটনা ভারতে ঘটেনি। এটা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ঘটনা। সেখানকার আরকানসাসের ওয়াটসন এলিমেন্টারি স্কুলে ঘটনাটি ঘটেছে। সেই এক স্কুলের শিক্ষিকা শীতকালীন ছুটির শেষে ফেসবুকে লেখেন, ''চিড়িয়াখানায় বাঁদরগুলো আজ আবার ফিরে আসছে। বাঁদরগুলোকে শেখাতে শেখাতে আমি ক্লান্ত।''

তাঁর মন্তব্য স্কুল কর্তৃপক্ষের চোখে পড়তেই শুরু হয় বিতর্ক। তাঁকে সমালোচনার মুখে পড়তে হয়। আপত্তি তোলেন অভিভাবকরাও। এর পরই তিনি পরিস্থিতি সামলাতে পোস্ট ডিলিট করে দেন।

আরও পড়ুন: এ কেমন টুনা! দাম ৩১ লক্ষ ডলার!

তার পরও বিতর্ক চলতে থাকে। তার জেরে স্কুল কর্তৃপক্ষ ওই শিক্ষিকার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়। তাঁকে সবেতন ছুটিতে পাঠানো হয়। স্থানীয় প্রশাসনের তরফেও বিষয়টির তদন্ত করা হবে বলে জানানো হয়েছে।