অধস্তনকে মারধর, ফের শিরোনামে তেহট্টের এসডিপিও

তেহট্টে গুলি চালানোর ঘটনার দুসপ্তাহের মাথায় বেপরোয়া আচরণের জেরে ফের খবরের শিরোনামে অভিযুক্ত এসডিপিও শৈলেশ শা। মঙ্গলবার সকালে অধঃস্তন এক এএসআইকে মারধরের অভিযোগ উঠেছে তাঁর বিরুদ্ধে। এসডিপিও তাঁকে গুলি করার হুমকিও দিয়েছেন বলেও অভিযোগ। প্রশ্ন উঠছে, তেহট্টে গুলি চালানোর ঘটনায় রাষ্ট্রের সমর্থন পেয়েই কি এতটা বেপরোয়া হয়ে উঠছেন অভিযুক্ত এসডিপিও?

Updated: Nov 28, 2012, 10:26 AM IST

তেহট্টে গুলি চালানোর ঘটনার দুসপ্তাহের মাথায় বেপরোয়া আচরণের জেরে ফের খবরের শিরোনামে অভিযুক্ত এসডিপিও শৈলেশ শা। মঙ্গলবার সকালে অধঃস্তন এক এএসআইকে মারধরের অভিযোগ উঠেছে তাঁর বিরুদ্ধে। এসডিপিও তাঁকে গুলি করার হুমকিও দিয়েছেন বলেও অভিযোগ। প্রশ্ন উঠছে, তেহট্টে গুলি চালানোর ঘটনায় রাষ্ট্রের সমর্থন পেয়েই কি এতটা বেপরোয়া হয়ে উঠছেন অভিযুক্ত এসডিপিও?
তেহট্টের ঘটনার পর থেকেই কৃষ্ণনগরে পুলিসের অতিথিশালায় রয়েছেন শৈলেশ শা। মঙ্গলবার সকালে অতিথিদের দেখভালের দায়িত্বে থাকা এসআই কিশোর দেকে তিনি মারধর করেন। শুধু মারধর নয়, সঙ্গে ছিল হুমকিও।
আহত অবস্থায় এখন হাসপাতালে চিকিত্সাধীন এসআই কিশোর দে। ঘটনার কথা নিজের ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানালেও, কেউই তাঁকে লিখিত অভিযোগ জানাতে বলেননি।
যদিও আইন অনুসারে আক্রান্ত এসআই কিশোর দের কাছ থেকে লিখিত অভিযোগ নেওয়া উচিত ছিল। তা না হওয়ায়, অভিযুক্ত পুলিস কর্মীকে আড়াল করার অভিযোগ উঠছে। ঠিক যেমন ঘটেছিল তেহট্টে গুলি চালানোর ঘটনায়। সেবারও গুলি চালানোর কারণ হিসেবে আত্মরক্ষার তত্ত্ব খাড়া করা হয়েছিল।