বুধবার উদ্বোধন, Mamata Banerjee এর গান গেয়েই শুরু এবারের সঙ্গীত মেলা

কোভিড বিধি মেনেই মেলার আয়োজন করা হচ্ছে

Reported By: অনুসূয়া বন্দ্যোপাধ্যায় | Updated By: Dec 22, 2020, 06:09 PM IST
বুধবার উদ্বোধন, Mamata Banerjee এর গান গেয়েই শুরু এবারের সঙ্গীত মেলা
ফাইল ছবি

নিজস্ব প্রতিবেদন : কোভিড বিধি মাথায় রেখেই শুরু হতে চলেছে সঙ্গীতমেলা ২০২০। ২৩ ডিসেম্বর উত্তীর্ণয় উদ্বোধন হবে সঙ্গীত মেলা এবং বিশ্ববাংলা লোকসংস্কৃতি উতসবের। মেলার উদ্বোধন করবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্য়োপাধ্যায় (Mamata Banerjee)। প্রতি বছরের মত এই বছরের লোকগানের উপরই এই মেলায় জোর দেওয়া হবে। কোভিড বিধির কথা মাথায় রেখেই সামাজিক দূরত্ব মেনেই হবে উৎসব। 

করোনা (Corona) বিধি আরোপ থাকায় মুক্ত মঞ্চে সামাজিক দূরত্ব মেনে দাঁড়াতে হবে। বসার জায়গা থাকলে তাও সেইভাবেই রাখতে হবে। যেকটি প্রেক্ষাগৃহে অনুষ্ঠিত হবে তার প্রতিটিতেই ৫০শতাংশ লোক থাকবেন। যে সব প্রেক্ষাগৃহে অনেক বেশি আসন সংখ্যা, সেখানে সবচেয়ে বেশি ২০০ জন প্রবেশ করতে পারবেন। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশিষ্ট শিল্পীদের সম্মানিত করে হবে। সঙ্গীত সম্মান ও সঙ্গীত মহাসম্মান মিলিয়ে ২২জন শিল্পীকে সম্মান জানানো হবে এবারে।

এবার মুখ্য়মন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের লেখা গান গেয়ে অনুষ্ঠান শুরু করবেন মন্ত্রী ইন্দ্রনীল সেন, মনোময় ভট্টাচার্য, শ্রীকান্ত আচার্য, শ্রীরাধা বন্দ্যোপাধ্য়ায়, জোজো, রাঘব চট্টোপাধ্য়ায়, শিবাজী চট্টোপাধ্য়ায়, পর্ণাভ বন্দ্যোপাধ্য়য়, অরিত্র দাশগুপ্ত সহ বিশিষ্ট শিল্পীরা। সৌমিত্র চট্টোপাধ্য়ায়কে শ্রদ্ধা জানিয়ে 'ও আকাশ সোনা সোনা' গানটিও গাওয়া হবে মঞ্চে।

আগামী. ২৪ থেকে ৩১ ডিসেম্বর কলকাতার দশটি মঞ্চে বিকেল চারটে থেকে অনুষ্ঠিত হবে সঙ্গীত মেলা। অংশ নেবেন পাঁচ হাজারেরও বেশি শিল্পী ও মিউজিশিয়ানরা। দেশপ্রিয় পার্কে বাংলা ব্য়ান্ডের সদস্যরাও অনুষ্ঠান করবেন। অনুষ্ঠান করার সুযোগ দেওয়া হবে উঠতি ব্যান্ডের সদস্যদেরও। এছাড়াও কলকাতা শহরের বিভিন্ন পাড়ায় প্রতিদিন চারটি করে অনুষ্ঠান হবে, যার নাম পাড়ায় পাড়ায় সঙ্গীতমেলা।

হেমন্ত মুখোপাধ্যায়ের জন্মশতবর্ষে শ্রদ্ধাঞ্জলি জানানো হবে 'আমার গানের স্বরলিপি লেখা রবে' নামের প্রদর্শনীর মাধ্যমে। গগনেন্দ্র প্রদর্শশালায় ১ জানুয়ারি দুপুর ২টো থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত চলবে এই প্রদর্শনী। সঙ্গীতমেলার শেষ দিন নন্দনে একতারা মঞ্চে বাংলা আধুনিক গান ও চলচ্চিত্রের গানে লোক সঙ্গীতের প্রভাব নিয়ে আলোচনা সভা করা হবে। সেখানে বাংলা সঙ্গীত জগতের বিশিষ্টরা আলোচনা করবেন। পাশাপাশি তুলে ধরবেন তাঁদের অভিজ্ঞতা।