বকেয়া বিল না মেটানো পর্যন্ত রোগী আটকে রাখার অভিযোগ,কাঠগড়ায় শহরের বেসরকারি হাসপাতাল

করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন ওই রোগী।

Updated By: Jun 18, 2021, 09:05 PM IST
বকেয়া বিল না মেটানো পর্যন্ত রোগী আটকে রাখার অভিযোগ,কাঠগড়ায় শহরের বেসরকারি হাসপাতাল

নিজস্ব প্রতিবেদন: বকেয়া বিল না মেটানো পর্যন্ত রোগী আটকে রাখার অভিযোগ। কাঠগড়ায় আনন্দপুরের একটি বেসরকারি হাসপাতাল। মন্ত্রী ব্রাত্য বসুর লেখা চিঠি দেখালেও, তা অগ্রাহ্য করার অভিযোগ উঠেছে। পুলিসে দায়ের হয়েছে অভিযোগ।

দমদমের বাসিন্দা কুমকুম সিংহ। বয়স ৩২। শ্বাসকষ্ট নিয়ে গত ২৯ মে ওই বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি হন। করোনা পরীক্ষা করা হলে তাঁর রিপোর্ট পজিটিভ আসে। এরপর থেকে সেখানেই চিকিৎসাধীন ছিলেন তিনি। হাসপাতালের তরফে জানায়, রোগীর বিল হয়েছে প্রায় ১২ লক্ষ টাকা। বিলের অনেকটাই মিটিয়ে দেয় রোগীর পরিবার। বকেয়া রয়ে যায় ৫ লক্ষ ৭৮ হাজার টাকা। রোগীর পরিবারের অভিযোগ, ছুটির পর রোগীকে নিতে গেলে হাসপাতালের তরফে বলা হয় বকেয়া টাকা না মেটানো পর্যন্ত রোগীকে ছাড়া হবে না।

আরও পড়ুন: Sisir ও Sunil-র অবস্থান জানতে পাঠানো হচ্ছে নোটিস, জানালেন লোকসভার অধ্যক্ষ

আরও পড়ুন: Metro Services: সোমবার থেকে ১৫ মিনিট অন্তর স্পেশাল ট্রেন, রবিবার সম্পূর্ণ বন্ধ

এই নিয়ে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে পরিজনদের বচসা বাধে। অভিযোগ শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসুর চিঠি দেখালেও কোনও কাজ হয়নি। পরিস্থিতি জটিল হলে হাসপাতালের বিরুদ্ধে আনন্দপুর থানায় অভিযোগ দায়ের করেন রোগীর পরিজনরা। তবে পুলিসের বিরুদ্ধেও নিষ্ক্রিয়তার অভিযোগ উঠেছে।