close

News WrapGet Handpicked Stories from our editors directly to your mailbox

রাজীবের খোঁজে স্ত্রী সঞ্চিতা কুমারকে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করল সিবিআই

রাজীব কুমারকে হাতে না পেয়ে তাঁর উপর চাপ বাড়াতেই সিবিআই স্ত্রীকে জিজ্ঞাসাবাদ করার কৌশল নিয়েছে বলে মত ওয়াকিবহল মহলের।

Vikram Das | Updated: Sep 20, 2019, 04:23 PM IST
রাজীবের খোঁজে স্ত্রী সঞ্চিতা কুমারকে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করল সিবিআই

নিজস্ব প্রতিবেদন : রাজীব কুমারের খোঁজে এবার তাঁর স্ত্রীকে জিজ্ঞাসাবাদ করতে শুরু করল সিবিআই। সূত্রের খবর এমনই। রাজীব কুমারের স্ত্রী সঞ্চিতা কুমার একজন আইআরএস অফিসার। সিবিআই সূত্রে জানা যাচ্ছে, ডিএসপি পদমর্যাদার এক মহিলা অফিসার সঞ্চিতা কুমারকে জিজ্ঞাসাবাদ করছেন। রাজীব কুমার কোথায় আছেন? তিনি ছুটিতে থাকলে, কোথায় গিয়েছেন? তাঁর স্ত্রীকে জিজ্ঞাসাবাদ করে এই প্রশ্নেরই সদুত্তর পেতে চাইছেন গোয়েন্দারা। তবে সঞ্চিতা কুমারকে কোথায় জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে, সে বিষয়ে স্পষ্ট করে কিছু জানা যায়নি। উল্লেখ্য, গতকাল রাজীব কুমারের বাসভবনে গিয়ে ফের একবার নোটিস ধরায় সিবিআই। নোটিসে ১৬০ সিআরপিসি ধারায় অবিলম্বে হাজিরার জন্য নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল রাজীব কুমারকে।

কিন্তু রাজীব কুমার বেপাত্তা। তাঁর খোঁজে হন্যে হয়ে ঘুরছে সিবিআই টিম। প্রাক্তন পুলিস কমিশনার আত্মগোপন করে থাকতে পারেন, সম্ভাব্য এমন সব জায়গায় চলছে তল্লাশি। সিবিআই সূত্রে খবর, কলকাতা ও জেলা মিলিয়ে মোট ৬টি জায়গায় এই মুহূর্তে তল্লাশি চালাচ্ছেন গোয়েন্দারা। শান্তিনিকেতন ভবনে তল্লাশি চালানো হচ্ছে। তল্লাশি চালানো হচ্ছে রায়চকের একটি রিসর্টেও। বৃহস্পতিবার মধ্যরাতে আরও দুই সরকারি গেস্ট হাউসে তল্লাশি চালান সিবিআই আধিকারিকরা। কলকাতায় সিবিআইয়ের গেস্ট হাউস ও বিষ্ণুপুরে ওয়াটার ট্রিটমেন্ট প্ল্যান্ট-এর গেস্ট হাউসে তল্লাশি চালান তদন্তকারী অফিসাররা।

আরও পড়ুন, 'অভিভাবক হিসেবে বিশ্ববিদ্যালয়ে গিয়েছিলেন আচার্য ধনখড়', রাজ্য সরকারকে কড়া জবাব রাজভবনের

প্রসঙ্গত, বৃহস্পতিবারই আলিপুর আদালত স্পষ্ট জানিয়ে দেয় যে পরোয়ানা ছাড়াই গ্রেফতার করা যাবে রাজীব কুমারকে। নিজের ক্ষমতাবলেই রাজীব কুমারকে গ্রেফতার করতে পারবে সিবিআই। রায় ঘোষণা করে বিচারক বলেন, রাজীবের বিরুদ্ধে ধর্তব্যযোগ্য অপরাধ রয়েছে। তাই কোনও পরোয়ানা ছাড়াই গ্রেফতার করা যাবে রাজীব কুমারকে। সুপ্রিম কোর্ট তার রায়েই সেটা জানিয়েছে। হাইকোর্টও তাই বলেছে। গতকালকের এই রায়ের পর আজই আলিপুর জজ কোর্টে আগাম জামিনের মামলা দায়ের করেছেন রাজীব কুমার। এখন রাজীব কুমারকে হাতে না পেয়ে তাঁর উপর চাপ বাড়াতেই, সিবিআই স্ত্রীকে জিজ্ঞাসাবাদ করার কৌশল নিয়েছে বলে মত ওয়াকিবহল মহলের।