মুখ্যমন্ত্রীর বাড়ির পুজো, সংঘাত ভুলে সস্ত্রীক হাজির রাজ্যপাল

বিক্রম দাস

Updated By: Oct 27, 2019, 07:13 PM IST
মুখ্যমন্ত্রীর বাড়ির পুজো, সংঘাত ভুলে সস্ত্রীক হাজির রাজ্যপাল

বিক্রম দাস

অবশেষে রাজ্য়-রাজ্যপালের সংঘাত হয়তবা মিটল। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যয়ের বাড়িতে হাজির হলেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়। তাঁর সঙ্গী হন স্ত্রী সুদেশ ধনখড়। বিবাদ ভুলে রাজ্যপালকে সাদরে অভ্যর্থনা জানান মুখ্যমন্ত্রী। 

কিছুদিন আগেই নবান্ন সূত্রে খবর মেলে ভাইফোঁটার দিনই নাকি রাজ্যপালকে  নিজের বাড়িতে আমন্ত্রণ জানাবেন মুখ্যমন্ত্রী। এমনকি বারাসতের এক কালীপুজোর উদ্বোধনে গিয়ে রাজ্যপাল নিজেই ভাইফোঁটার দিন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বাড়িতে যাওয়ার আগ্রহ প্রকাশ করেন। বলেন, আমি মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি দিয়ে অনুরোধ করেছিলাম ভাইফোঁটার দিন তাঁর বাড়ি যেতে চাই। ওই দিনটি সমস্ত ভাই-বোনের কাছেই পবিত্র।" ওইদিন রাজ্যপাল আরও জানিয়েছিলেন, "উত্তরবঙ্গ থেকে ফিরেই চিঠির উত্তর দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি আমাকে এবং আমার স্ত্রীকে ২৭ অক্টোবর নিজের বাড়ির পুজোয় আমন্ত্রণ জানিয়েছেন। এই ব্যক্তিগত পত্রের পর আমি তাঁর কাছে কৃতজ্ঞ। আর কোনও প্রশ্নের উত্তর দিতে চাই না।"

এমনকি তিনি যে রবিবার মুখ্যমন্ত্রীর বাড়িতে যাচ্ছেন সেবিষয়ে এদিন সকালে টুইটও করেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়। আর সেইমতই তিনি রবিবার দীপাবলির দিন মুখ্যমন্ত্রীর বাড়িতে সস্ত্রীক হাজির হন রাজ্যপাল।

প্রসঙ্গত, যাদবপুরে বাবুল সুপ্রিয়র উপর হামলা, জিয়াগঞ্জের খুন, এমনকি সাম্প্রতিককালে সরকারি উদ্যোগে হওয়া দুর্গাপুজো কার্নিভাল সহ একাধিক ইস্যুতে রাজ্য সরকারের সঙ্গে রাজ্যপালের বিবাদ চরমে উঠেছিল। এমনকি রাজ্যপালের ডাকা প্রশাসনিক বৈঠকে মুখ্যমন্ত্র্রী কিংবা সরকারের পক্ষ থেকে কোনও প্রতিনিধিই উপস্থিত হননি। তবে সমস্ত বিবাদের শেষে মুখ্যমন্ত্রীর বাড়ির পুজোয় রাজ্যপালের উপস্থিতি দুতরফের মধ্যে সৌজন্যের রাস্তাই তৈরি করবে বলে মনে করছে ওয়াকিবহল মহল।