পোস্টার ছেঁড়ার নামে কার্যত ভাঙচুর চলল যাদবপুর ক্যাম্পাসে

পোস্টার ছেঁড়ার নামে কার্যত ভাঙচুর চলল যাদবপুর ক্যাম্পাসে। সন্ধেয় বিশ্ববিদ্যালয় চত্বরে ঢুকে সব পোস্টার ছিঁড়ে দেন একদল পড়ুয়া।  এধরণের ঘটনা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাসে নজিরবিহীন একমত ছাত্র-শিক্ষক দুপক্ষই। দেশবিরোধী স্লোগান,পোস্টার, পাল্টা মিছিল। JNU আঁচে দিনভর উত্তপ্ত যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়। সারাদিনের উত্তেজনা ক্লাইম্যাক্সে পৌছল সন্ধেয়। পোস্টার ছেঁড়ার অজুহাতে ক্যাম্পাসে দাপিয়ে বেড়াল একদল ছাত্র। আফজল-মেমন-গিলানি সমর্থনের লাগানো পোস্টারতো বটেই, ছেঁড়া হল ক্যাম্পাসে লাগানো বাকি সব পোস্টার। পড়ুয়াদের দাবি ক্যাম্পাসের ময়লা সাফ করছেন তাঁরা।

Updated By: Feb 17, 2016, 10:21 PM IST
পোস্টার ছেঁড়ার নামে কার্যত ভাঙচুর চলল যাদবপুর ক্যাম্পাসে

ওয়েব ডেস্ক: পোস্টার ছেঁড়ার নামে কার্যত ভাঙচুর চলল যাদবপুর ক্যাম্পাসে। সন্ধেয় বিশ্ববিদ্যালয় চত্বরে ঢুকে সব পোস্টার ছিঁড়ে দেন একদল পড়ুয়া।  এধরণের ঘটনা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাসে নজিরবিহীন একমত ছাত্র-শিক্ষক দুপক্ষই। দেশবিরোধী স্লোগান,পোস্টার, পাল্টা মিছিল। JNU আঁচে দিনভর উত্তপ্ত যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়। সারাদিনের উত্তেজনা ক্লাইম্যাক্সে পৌছল সন্ধেয়। পোস্টার ছেঁড়ার অজুহাতে ক্যাম্পাসে দাপিয়ে বেড়াল একদল ছাত্র। আফজল-মেমন-গিলানি সমর্থনের লাগানো পোস্টারতো বটেই, ছেঁড়া হল ক্যাম্পাসে লাগানো বাকি সব পোস্টার। পড়ুয়াদের দাবি ক্যাম্পাসের ময়লা সাফ করছেন তাঁরা।

পোস্টার ছেঁড়ার নামে যা হয়েছে, তা নজিরবিহীন। বলছেন,যাদবপুরের পড়ুয়ারা। কিছুটা ত্রস্ত শিক্ষক-শিক্ষিকারাও। পোস্টার ছেঁড়ার নামে ক্যাম্পাসে কার্যত ভাঙচুর চলেছে। যারা ভাঙচুর করল তাদের মধ্যে অনেকেই বহিরাগত অভিযোগ পড়ুয়াদের একাংশেরই।