বাড়ি ঢুকে মা-মেয়েকে গণধর্ষণ পুলিসকর্মীদের, দরজায় দাঁড়িয়ে 'মজা দেখল' মোড়লরা

ঘটনার তদন্তে নেমে সিট গঠন করেছে হরিয়ানা পুলিস। সিটের নেতৃত্বে রয়েছেন  একজন ডিএসপি পদমর্যাদার অফিসার।

Updated By: Oct 5, 2018, 12:43 PM IST
বাড়ি ঢুকে মা-মেয়েকে গণধর্ষণ পুলিসকর্মীদের, দরজায় দাঁড়িয়ে 'মজা দেখল' মোড়লরা

নিজস্ব প্রতিবেদন : নারকীয় নির্যাতনের শিকার হল মা ও মেয়ে। বাড়িতে ঢুকে ১৮ জন মিলে গণধর্ষণ করল মা ও মেয়েকে। অভিযুক্তদের মধ্যে ৭ জনই আবার পুলিসকর্মী। জঘন্য, ঘৃণ্য এই ঘটনাটি ঘটেছে হরিয়ানায়। এই খবর সামনে আসতেই তোলপাড় শুরু হয়ে গেছে দেশজুড়ে।

আরও পড়ুন, তোয়ালে, চাদর, বালিশ চুরির মহারেকর্ড, চাঞ্চল্যকর তথ্য দিলে রেল কর্তৃপক্ষ

রক্ষকই হয়ে উঠল ভক্ষক। গণধর্ষণে জড়িয়ে খোদ পুলিসকর্মী। তারমধ্যে মূল অভিযুক্ত একজন অ্যাসিস্ট্যান্ট সাব ইনস্পেকটর পদমর্যাদার একজন অফিসার। গণধর্ষণের ঘটনায় তদন্তে নেমে মাথা হেঁট হয়ে গেছে পুলিসেরই। জানা গিয়েছে, গত মাসে গণধর্ষণের ঘটনাটি ঘটে। বাড়িতে ঢুকে মা ও নাবালিকা মেয়েকে গণধর্ষণ করে ১৮ জন। নির্যাতনের পরই মেয়েকে নিয়ে পুলিসের দ্বারস্থ হন মা। ঘটনার তদন্তে নেমে উঠে আসে একের পর এক নাম। দেখা যায়, অভিযুক্ত ১৮ জনের মধ্যে ৭ জনই পুলিসকর্মী। মূল অভিযুক্ত একজন অ্যাসিস্ট্যান্ট সাব ইন্সপেক্টর অফিসার ছাড়াও অভিযুক্তদের মধ্যে রয়েছেন কনস্টেবল, হেড কনস্টেবল। নির্যাতিতার অভিযোগের ভিত্তিতে সকল অভিযুক্তকেই গ্রেফতার করেছে পুলিস।

অভিযুক্তদের মধ্যে ৩ জন

আরও পড়ুন, চলন্ত ট্রেনের দরজায় দাঁড়িয়ে হাওয়া খাওয়ার নেশা! পিছলে পড়েও নাটকীয়ভাবে রক্ষা তরুণীর

বাকি অভিযুক্তদের মধ্যে রয়েছেন গ্রামের প্রাক্তন মোড়ল ও অন্যান্যরা। অভিযোগ, ঘটনার সময় তাঁরা সবাই দরজায় দাঁড়িয়ে 'মজা' দেখছিল! এমনকি আরও নির্যাতন করার জন্য 'উত্সাহ'ও দিচ্ছিল! এই ঘটনার তদন্তে নেমে সিট গঠন করেছে হরিয়ানা পুলিস। সিটের নেতৃত্বে রয়েছেন  একজন ডিএসপি পদমর্যাদার অফিসার। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিস।