মুখ্যমন্ত্রী না চাইলে কি পরিযায়ী শ্রমিক-রোগীরা ঘরে ফিরবে না? অমিতের কাছে ফোনে নালিশ অধীরের

অমিত শাহকে অধীর জানান, বেঙ্গালুরুতে কমপক্ষে ৫০০ মানুষ আটকে রয়েছেন। অধিকাংশ রোগীই। হোটেলে থাকার মতো পয়সা নেই

Updated By: May 7, 2020, 09:17 PM IST
মুখ্যমন্ত্রী না চাইলে কি পরিযায়ী শ্রমিক-রোগীরা ঘরে ফিরবে না? অমিতের কাছে ফোনে নালিশ অধীরের
ফাইল চিত্র

নিজস্ব প্রতিবেদন: পরিযায়ী শ্রমিকদের ফেরাতে কেন দায়িত্ব নেওয়া হচ্ছে না? বেঙ্গালুরুতে আটকে পড়া রোগীরা এবং তাঁদের পরিবারের সদস্যরা টিকিটের দাম দিয়ে ফিরতে চাইছেন, তবুও আসতে পারছেন না। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উপর একরাশ ক্ষোভ উগরে সোজা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে ফোনা করলেন কংগ্রেস সাংসদ অধীর রঞ্জন চৌধুরী। তাঁর কাতর আর্জি, পরিযায়ী শ্রমিক, রোগীদের দ্রুত ঘরে ফেরানোর ব্যবস্থা করুন। অধীরের এই আর্জিতে সাড়া দিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহও।

প্রথমে কথা বলেন রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়েলের সঙ্গে। অধীর চৌধুরী জানান, রেলমন্ত্রী তাঁকে জানিয়েছেন বাংলা থেকে ২টি ট্রেন চাওয়া হয়েছে পরিযায়ী শ্রমিকদের জন্য। মুখ্যমন্ত্রীর সাহস থাকলে প্রমাণ করুন রেলমন্ত্রী মিথ্যে কথা বলছেন। তবে, তিনি এখানেই থেমে থাকেননি। পরে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গেও কথা বলেছেন অধীর চৌধুরী।

অমিত শাহকে অধীর জানান, বেঙ্গালুরুতে কমপক্ষে ৫০০ মানুষ আটকে রয়েছেন। অধিকাংশ রোগীই। হোটেলে থাকার মতো পয়সা নেই। করুণ অবস্থায় দিন কাটাচ্ছেন তাঁরা। পরিযায়ী শ্রমিকদের দাবি বাংলার মুখ্যমন্ত্রী যদি ঘরে না ফেরায়, তাহলে কি তাঁদের এভাবেই দিন গুজরান করতে হবে? তাঁদের ঘরে ফেরানোর ব্যবস্থা করার আর্জি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে জানান অধীর।

আরও পড়ুন- ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ফের বড়সড় সাফল্য সেনার, গ্রেফতার হিজবুল জঙ্গি

উল্লেখ্য, পরিযায়ী শ্রমিকদের ফিরিয়ে আনতে মূলত দুটি বিশেষ ট্রেন পেয়েছে বাংলা। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় টুইট করে আগেই জানিয়েছিলেন, ‘‘অন্য রাজ্যে আটকে পড়া আমাদের রাজ্যের নাগরিকদের ফিরিয়ে আনার প্রতিশ্রুতির অঙ্গ হিসেবে অজমের ও কেরল থেকে ২৫০০-র বেশি পরিযায়ী শ্রমিক, তীর্থযাত্রী, ছাত্র-ছাত্রী ও রোগীদের নিয়ে দু’টি বিশেষ ট্রেন ছাড়বে। ফিরে আসা প্রত্যেকেরই স্বাস্থ্যপরীক্ষা হবে প্রোটোকল মেনে।’’ প্রত্যেকের নামের তালিকা নথিবদ্ধ করা হচ্ছে, যাতে পরবর্তী ক্ষেত্রে প্রয়োজনে খোঁজ নেওয়া যায়।