ঘটনার সময় নাবালক ছিলাম, নির্ভয়াকাণ্ডে ফাঁসির সাজাপ্রাপ্ত পবনের আর্জি ফেরাল সুপ্রিম কোর্ট

পবন গুপ্তার আইনজীবির সওয়ালের পরিপ্রেক্ষিতে  সলিসিটার জেনারেল তুষার মেহতা বলেন, পবন গুপ্তার এই আবেদন একাধিকবার বিচার করে দেখা হয়েছে

Updated By: Jan 20, 2020, 04:00 PM IST
ঘটনার সময় নাবালক ছিলাম, নির্ভয়াকাণ্ডে ফাঁসির সাজাপ্রাপ্ত পবনের আর্জি ফেরাল সুপ্রিম কোর্ট

নিজস্ব প্রতিবেদন: ধীরে ধীরে বন্ধ হচ্ছে সব দরজা। দিল্লি হাইকোর্টের পর সুপ্রিম কোর্টও খারিজ করে দিল নির্ভয়াকাণ্ডে ফাঁসির সাজাপ্রাপ্ত পবন গুপ্তার আর্জি। ফলে ১ ফ্রেব্রুয়ারি সকাল ৬টাতেই ফাঁসি হচ্ছে পবনের।

আরও পড়ুন-টোটো চালিয়েই গড়েছেন স্কুলবাড়ি, বস্তির ছেলে-মেয়েদের পড়াশোনা শেখাচ্ছেন হাসনাবাদের বিষ্ণুপদ

সুপ্রিম কোর্টে কী আর্জি জানিয়েছিল পবন? নির্ভয়াকাণ্ডে দোষী সাব্যস্ত এই আসামীর দাবি ছিল অপরাধের সময়ে সে সাবালক হয়নি। স্কুল সার্টিফিকেটে সেটাই প্রমাণ করছে। কিন্তু কোনও আদালতেই সেই দাবি গ্রাহ্য করেনি।  সুপ্রিম কোর্ট তার রায়ে আজ জানিয়েছেন পবন গুপ্তার আর্জি বিচার করে দেখার মতো কোনও যুক্তি নেই।  নাবালক হওয়ার বিষয়টি যখন একবার আদালত বিচার করে দেখেছ তখন তা আর তোলার কোনও প্রয়োজন নেই। এই আর্জি আগেও করা হয়েছে। কতবার এই আবেদন শুনবে আদালত!

আরও পড়ুন-হুগলির কোন্নগরে 'বাঘ'? সিসিটিভি ফুটেজ ঘিরে জোর চাঞ্চল্য  

পবন গুপ্তার আইনজীবির সওয়ালের পরিপ্রেক্ষিতে  সলিসিটার জেনারেল তুষার মেহতা বলেন, পবন গুপ্তার এই আবেদন একাধিকবার বিচার করে দেখা হয়েছে। ফের যদি একই দাবি তোলা হয় তাহলে তা বিচার প্রক্রিয়ার অপমান হবে। অপরাধ করার সময় অপরাধীর বয়স ছিল ১৯। তার প্রমাণ দিচ্ছে তার জন্ম সার্টিফিকেট ও স্কুল সার্টিফিকেট।  পবনের বাবার ছেলের বয়স নিয়ে বয়ান দিয়েছে। ফলে অপরাদ করার সময়ে পবনের সাবালকত্ব  নিয়ে কোনও প্রশ্ন নেই।