থানায় রাধে মা-কে 'ভিআইপি ট্রিটমেন্ট', হাত জোড় পুলিসের

Updated By: Oct 5, 2017, 10:51 AM IST
থানায় রাধে মা-কে 'ভিআইপি ট্রিটমেন্ট', হাত জোড় পুলিসের

ওয়েব ডেস্ক : আশারাম বাপু কিংবা গুরমিত রাম রহিম সিং, স্বঘোষিত ধর্মগুরুদের নিয়ে বিতর্ক অব্যাহত। ধর্ষণে সাজাপ্রাপ্ত ডেরা প্রধান রাম রহিম সিং-কে নিয়ে যখন সংবাদমাধ্যমে জোর জল্পনা চলছে, সেই সময় বিতর্ক উস্কে ফের প্রকাশ্যে এলেন রাধে মা।

কেন জানেন? স্বঘোষিত ওই ধর্মগুরু থানায় হাজির হলে, তাঁকে ভিআইপি-র মত করে আদর আপ্যায়ন করা হয়। লাল রঙের পোশাক পরে পূর্ব দিল্লির বিবেক বিহার থানায় যখন হাজির হন রাধে মা, তখন যেন ভক্তিতে গদগদ হয়ে যান সেখানকার পুলিসের বেশ কয়েকজন।

শুধু কি তাই? দেখা যায়, বিবেক বিহার থানায় হাজির হয়ে, স্বঘোষিত ওই ধর্মগুরু সোজা এসএইচও-র চেয়ারে বসে পড়েন। আর রাধে মা-র সামনে হাত জোড় করে দাঁড়িয়ে থাকেন পুলিসের এক আধিকারিক। রাধে মা-র দেওয়া লাল ওড়না গলায় জড়িয়ে সেখানে দাঁড়িয়ে পড়েন আরও এক পুলিস কর্মী। আর রাধে মা-র ‘স্মরণাপন্ন’ পুলিসের ওই ছবি প্রকাশ্যে আসতেই তা ভাইরাল হয়ে যায়।

 

এদিকে গত সেপ্টেম্বর মাসে রাধে মা-র আবেদন খারিজ করে দেয় মুম্বইয়ের বরিভালি হাইকোর্ট। রাধে মা-র বিরুদ্ধে যাতে গার্হস্থ্য হিংসার সমস্ত অভিযোগ বাতিল করে দেওয়া হয়, সেই আবেদন জানিয়েছিলেন। কিন্তু, আদালত স্বঘোষিত ধর্মগুরুর সেই আবেদন খারিজ করে দেয়।

২০১৬ সালে নিকি গুপ্তা নামে এক মহিলা রাধে মা-র বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন। সেখানে রাধে মা-র বিরুদ্ধে গার্হস্থ্য হিংসার অভিযোগ দায়ের করেন ওই মহিলা। পণের জন্য রাধে মা ওই মহিলার শ্বশুরবাড়ির লোককে উস্কে দিয়েছিলেন বলে অভিযোগ করেন নিকি।