হানিমুন পিরিয়ড শেষ! আজ লজ্জায় পড়া থেকে বাঁচতে হবে বিরাটের দলকে

Updated By: Oct 25, 2017, 11:19 AM IST
হানিমুন পিরিয়ড শেষ! আজ লজ্জায় পড়া থেকে বাঁচতে হবে বিরাটের দলকে

নিজস্ব প্রতিবেদন : অনিল কুম্বলকে সরিয়ে দ্বিতীয়বার ভারতীয় ক্রিকেট দলের দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকে সময়টা দারুণ চলছিল রবি শাস্ত্রীর। তরতরিয়ে এগোচ্ছিল টিম ইন্ডিয়াও। প্রথমে শ্রীলঙ্কাতে গিয়ে তিন ধরনের ফর্ম্যাটেই তাদের হোয়াইটওয়াশ করে আসা। তারপর দেশের মাটিতে অস্ট্রেলিয়াকে পাঁচ ম্যাচের একদিনের সিরিজে ৪-১ ব্যবধানে হারানো। কিন্তু, এই প্রথমবার খানিকটা বেকায়দায় ভারত। নিউ জিল্যান্ডের বিরুদ্ধে তিনটে একদিনের ম্যাচের সিরিজ। যে কোনও সিরিজেরই প্রথম ম্যাচটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কিন্তু, এবার সিরিজের সেই প্রথম ম্যাচেই মুম্বইতে নিউজিল্যান্ডের কাছে হেরে গিয়েছে ভারত। আজ বুধবার সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে পুনেতে মুখোমুখি হবে দুই দল। আর এই ম্যাচেও যদি কিউয়িরা জিতে যায়, তাহলে ঘরের মাঠে একদিনের সিরিজে হারতে হবে ভারতকে! আজকের ম্যাচ তাই বিরাট কোহলির দলের কাছে ডু অর ডাই।

আরও পড়ুন দু'শোর গণ্ডিতে ডিভিলিয়ার্স-সৌরভের থেকে সেরা বিরাটই, বলছে পরিসংখ্যান

ওয়াংখেড়েতে ক্রিকেটের সব বিভাগেই টেক্কা দিয়েছিল নিউ জিল্যান্ড। তাদের দুই পেসার বোল্ট এবং সাউদি মিলে তুলে নিয়েছিলেন সাত-সাতটি উইকেট। দুরন্ত সেঞ্চুরি করেছিলেন অনভ্যস্থ মিডল অর্ডারে ব্যাট করতে নামা টম ল্যাথাম। মিডল অর্ডারে তাঁকে যোগ্য সঙ্গত দিয়েছিলেন অভিজ্ঞ রস টেলরও। কিন্তু, ভারতীয় ব্যাটিং লাইন আপে সেদিন অধিনায়ক বিরাট কোহলি ছাড়া কেউই সেভাবে বড় রান করতে পারেননি। দীর্ঘদিন পর দলে ফেরা দীনেশ কার্তিক খানিকটা চেষ্টা করেছিলেন বটে। কিন্তু, তাতে কিউয়িদের বিরুদ্ধে জয় পাওয়া যায়নি। অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে সিরিজে কূলদীপ যাদব এবং চাহাল ভাল বোলিং করেছিলেন। কিন্তু ওয়াংখেড়েতে নিউ জিল্যান্ডের বিরুদ্ধে ভারতের দুই তরুণ স্পিনারই সেভাবে দাগ কাটতে পারেননি।

আরও পড়ুন  মালয়ালম গান গাইছে ধোনি-কন্যা! ভাইরাল ভিডিও

আজ তাই, পুনেতে সব বিভাগেই আরও ভাল পারফর্ম করতে হবে ভারতীয় দলের ক্রিকেটারদের। কারণ, প্রথম ম্যাচে ছয় উইকেটে জিতে অনেক বেশি আত্মবিশ্বাসী হয়ে মাঠে নামবেন কিউয়িরা। তাই বিরাট কোহলির দল যদি বুধবার ঘুরে দাঁড়াতে না পারে, তাহলে ঘরের মাঠে নিউ জিল্যান্ডের কাছেও প্রথম একদিনের সিরিজ হারের লজ্জায় মুখ ঢাকতে হবে টিম ইন্ডিয়াকে। আজ দুপুর দেড়টায় শুরু ম্যাচ। রাতেই জানা যাবে, শেষ পর্যন্ত ইতিহাস গড়ে ফেলেন কিনা উইলিয়ামসন অ্যান্ড কোং। নাকি ফের আরেকবার দুর্দান্তভাবে ঘুরে দাঁড়াবে টিম ইন্ডিয়া!