জাতীয় দলের লাল-হলুদ স্ট্রাইকার এখন অতন্দ্র প্রহরী! মাছ চুরি ঠেকাতে নদীর পাহারায় Jeje Lalpekhlua

 পরিবেশের ভারসাম্য বজায় রাখতে নিজের পজিশন বদলালেন জেজে।

Updated By: May 15, 2021, 08:45 PM IST
জাতীয় দলের লাল-হলুদ স্ট্রাইকার এখন অতন্দ্র প্রহরী! মাছ চুরি ঠেকাতে নদীর পাহারায় Jeje Lalpekhlua

নিজস্ব প্রতিনিধি: ফুটবল থেকে আপাতত দূরে আছেন তিনিও। তবে ফুটবল না খেললেও জেজে লালপেখলুয়ার (Jeje Lalpekhlua) সময় কাটছে অত্যন্ত ব্যস্ততায়। মহৎ কাজে নেমে পড়েছেন জাতীয় দলের লাল-হলুদ ফুটবলার। পরিবেশের ভারসাম্য বজায় রাখতে পজিশন বদলালেন তিনি। স্ট্রাইকার থেকে জেজে এখন ডিফেন্ডার। নিজের রাজ্য মিজোরামের তুইচাং নদীর অতন্দ্র প্রহরী বছর তিরিশের ফুটবলার! নদীতে অতিরিক্ত মাছ চুরি ঠেকাতে গ্রামের বন্ধুদের সঙ্গে এক জোট হয়ে নদী পাহারা দিচ্ছেন জেজে। এক অন্য জেজেকেই পাওয়া যাচ্ছে আজকাল।

আরও পড়ুন: ইংল্যান্ড যাওয়ার আগেই বিরাটদের তিনবার COVID-19 পরীক্ষা ও ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিন পর্ব
 

সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে জেজে বলছেন, "কয়েক বছরে অতিরিক্ত মাছ ধরার জন্যই আমাদের তুইচাং নদীতে মাছের সংখ্যা অনেক কমে গিয়েছে। এটা একটা বড় সমস্যার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। স্থানীয় মৎসজীবীদের বেঁচে আছেন এই নদীর ওপর ভর করে, তাঁদের খুব সমস্যা হচ্ছে।"তুইচাং নদীর তীরবর্তী টানা ৫০০ মিটার এলাকা চিহ্ণিত করে জেজেরা সেখানে মাছ ধরায় ফতোয়া জারি করেছেন। এর ফলে এখন মাছের সংখ্যা অনেকটাই বেড়েছে। জেজে এ প্রসঙ্গে বলেন, "আমারা নদীর ওই বিশেষ জায়গা মাছ ধরা বন্ধ করায় হাতেনাতে ফল পেয়েছি। এখানকার মানুষ ২৪ ঘণ্টা নদীর পাহারা দেন। অত্যন্ত পরিশ্রম করেন। আমি নিজে আসলে কাজে লেগে পড়ি। কিন্তু ফুটবল থাকলে সেটা সম্ভব হয় না। আমাদের মিলিত প্রয়াসে এখন তুইচাং নদীতে মাছের পরিমাণ এতটাই বেড়েছে যে, স্থানীয় মৎসজীবীরা বলছেন যে, তাঁরা কখনও এর আগে এই নদীতে এত মাছ দেখেননি।"