শাহিদ আফ্রিদির খৈনি সেবনের ভিডিয়ো TikTok-এ ভাইরাল, ঠাট্টা চলছে

৬ সেপ্টেম্বর সেনা দিবস পালন করে পাকিস্তান। ওই দিন রাওয়ালপিন্ডিতে সেনার একটি অনুষ্ঠানে অংশ নিতে গিয়েছিলেন আফ্রিদি। 

Updated By: May 29, 2020, 05:41 PM IST
শাহিদ আফ্রিদির খৈনি সেবনের ভিডিয়ো TikTok-এ ভাইরাল, ঠাট্টা চলছে

নিজস্ব প্রতিবেদন— শাহিদ আফ্রিদি মানেই বিতর্ক, আলোচনা। মাঠে হোক বা মাঠের বাইরে, তিনি খবরের বাইরে থাকতে চান না যেন! সম্প্রতি আফ্রিদির একটি পুরনো ভিডিয়ো ভাইরাল হয়েছে আবার। ভিডিয়োটি দুবছর আগের। সেই ভিডিয়োতে দেখা যাচ্ছে, অনেকের মাঝে বসে থাকা আফ্রিদি লুকিয়ে মুখে খৈনি পুরে ফেলছেন। সেই সময় এমন ভিডিয়ো নিয়ে হাসির রোল উঠেছিল। এমনকী পাকিস্তানের জনগণও আফ্রিদিকে ট্রোল করেছেন। সেই পুরনো ভিডিয়ো নতুন করে ভাইরাল হয়েছে টিকটকে। পুরনো হলেও এই ভিডিয়ো অস্ত্র হিসাবে ব্যবহার করছেন ভারতীয় সমর্থকরা। কারণ, আফ্রিদি কিছুদিন আগে পাক অধিকৃত কাশ্মীরে দাঁড়িয়ে ভারতের প্রধানমন্ত্রীর ব্যাপারে আপত্তিজনক কথা বলেছিলেন। তাই তাঁকে নিয়ে ঠাট্টা করার এই সুবর্ণ সুযোগ ছাড়তে চাইছেন না কেউই।

২০১৮ সালের ভিডিয়ো। ৬ সেপ্টেম্বর সেনা দিবস পালন করে পাকিস্তান। ওই দিন রাওয়ালপিন্ডিতে সেনার একটি অনুষ্ঠানে অংশ নিতে গিয়েছিলেন আফ্রিদি। সেখানে গিয়ে তিনি সেনার অনেক উচ্চপদস্থ কর্তাদের মাঝে বসেছিলেন। তাঁকে ঘিরে ছিল বহু্ মাননীয় ব্যক্তি। তাঁদের মাঝে বসে শাহিদ আফ্রিদি অনেকক্ষণ ধরে ছটফট করছিলেন। সুযোগ পেয়ে টুক করে মুখে কিছুটা খৈনি পুরে ফেলেন। কিন্তু সেই সময় ক্যামেরা তাঁকেই তাক করে ছিল। ফলে তাঁর লুকিয়ে করা কাজ আর লুকনো থাকল না। সেই ভিডিয়ো ভাইরাল হয়েছিল। যদিও আফ্রিদি পরে বলেছিলেন, তিনি মোটেও খৈনি সেবন করেননি। বরং তিনি যেটা মুখে পুরেছিলেন সেটা ছিল নস্যি। তবে কে শোনে কার কথা! আফ্রিদির সেই কথা কেউ বিশ্বাস করেনি।

আরও পড়ুন— ২০১১ বিশ্বকাপ ফাইনালে কেন দু'বার টস করেছিলেন ধোনি, এতদিনে জানালেন সাঙ্গাকারা

@krishusinha3

##afridi ##pak ##funny ##viral ##indianarmy ##trending ##foryou ##foryoupage @tiktok_india

♬ original sound - krishusinha3

আফ্রিদির সেই পুরনো ভিডিয়ো নতুন করে ১.৭ লাখ লোক দেখে ফেলেছেন। এমনকী চার হাজার মানুষ ওই ভিডিয়ো লাইক করেছেন। একের পর এক মজাদার কমেন্ট পড়ছে ভিডিয়োর নিচে। ভারতের ব্যাপারে আফ্রিদির সব সময় কিছু না কিছু বলা চাই। কাশ্মীর নিয়েও তিনি পাকিস্তানের জনগণকে বারবার উস্কানি দেওয়ার চেষ্টা করেন। আর তাই আফ্রিদিকে ট্রোল করার সুযোগ পেয়ে ছাড়ছেন না ভারতীয় সমর্থকরা।