ঘরে হাজার ছেলে ঢুকিয়ে মারার হুমকি ভারতীর, পাল্টা গ্রেফতারির হুঁশিয়ারি মমতার

"ভারতী ঘোষকে চাইলে গ্ৰেফতার করতে পারতাম। একটা মামলায় সুপ্রিম কোর্ট বলেছে গ্ৰেফতার করা যাবে না। কিন্তু আরও অনেক মামলা আছে।"

Updated By: May 4, 2019, 07:52 PM IST
ঘরে হাজার ছেলে ঢুকিয়ে মারার হুমকি ভারতীর, পাল্টা গ্রেফতারির হুঁশিয়ারি মমতার

নিজস্ব প্রতিবেদন : "উত্তরপ্রদেশ থেকে হাজার লোক নিয়ে এসে ঘরে ঢুকিয়ে দেব। বাড়ি থেকে টেনে বের করে এনে মারব।" এই ভাষাতেই প্রকাশ্যে তৃণমূল কর্মীদের উদ্দেশ হুমকি দেওয়ার অভিযোগ উঠল ভারতী ঘোষের বিরুদ্ধে। ঘাটালের বিজেপি প্রার্থী ভারতী ঘোষ। এদিন দলীয় কর্মীদের সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে তিনি তৃণমূলের কর্মী-সমর্থকদের উদ্দেশে হুমকি দেন বলে অভিযোগ। ভারতী ঘোষের এই মন্তব্যের বিষয়ে জেলা প্রশাসনের কাছে ইতিমধ্যেই রিপোর্ট তলব করেছে কমিশন।

প্রসঙ্গত, দিন কয়েক আগে প্রচারে বেরিয়ে দোকানপাট বন্ধ দেখতে পান ভারতী ঘোষ। দোকানপাট সব বন্ধ দেখে মেজাজ সপ্তমে ওঠে ভারতী ঘোষের। তখন কেশপুর ও আনন্দপুর থানার ওসিকে উদ্দেশ করে হুমকি দিতে শোনা যায় ভারতী ঘোষকে। থানার অফিসারদের পর এবার তৃণমূল কর্মীদের প্রকাশ্যে মারধরের হুমকি দেওয়ার অভিযোগ উঠল ঘাটালের বিজেপি প্রার্থীর বিরুদ্ধে।

এদিন আনন্দপুরের গাড়রবাগে দলীয় কর্মীদের সঙ্গে দেখা করতে যান ভারতী ঘোষ। সেখানেই প্রকাশ্যে তৃণমূল কর্মীদের হুমকি দিতে শোনা যায় তাঁকে। প্রকাশ্যে ভারতী ঘোষ বলেন, "উত্তরপ্রদেশ থেকে হাজার ছেলে নিয়ে এসে ঘরে ঢুকিয়ে দেব। বাড়ি থেকে টেনে বের করে এনে মারব। কুকুরের মতো মারব। খুঁজে পাওয়া যাবে না। ঘরে ঢুকে তালা মার বলছি।" এই মন্তব্যের পরই এদিন ফের নতুন করে উত্তেজনা ছড়ায় আনন্দপুরে।

উল্লেখ্য, পরশুদিন বৃহস্পতিবার এই এলাকায় বিজেপি কর্মী সমর্থকদের উপর হামলার ঘটনা ঘটে। যে ঘটনায় শাসকদল তৃণমূলের দিকে অভিযোগের আঙুল ওঠে। আজ সেই এলাকাতেই দলীয় কর্মীদের সঙ্গে দেখা করতে আসেন ভারতী ঘোষ। এদিকে, ভারতী ঘোষের এই মন্তব্যের পরই কড়া প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন তৃণমূল মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায়। তৃণমূল কমিশনে নালিশ জানাবে বলে জানিয়েছেন তিনি। তবে কমিশন ইতিমধ্যেই জেলা প্রশাসনের কাছে রিপোর্ট তলব করেছে এই ঘটনায়।

আরও পড়ুন,ফণির ছোবল থেকে কেন রক্ষা কলকাতার? আবহাওয়া দফতর জানাল ৪ কারণ

অন্যদিকে, এদিন ঘাটালের তৃণমূল প্রার্থী দেবের হয়ে রোড শো-এ অংশ নেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেখানেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় পাল্টা নিশানা করেন ভারতী ঘোষকে। বলেন, "ভারতী ঘোষকে চাইলে গ্ৰেফতার করতে পারতাম। একটা মামলায় সুপ্রিম কোর্ট বলেছে গ্ৰেফতার করা যাবে না। কিন্তু আরও অনেক মামলা আছে। ওর গ্ৰামসভায় জেতার যোগ্যতা নেই। লোকসভা নির্বাচনে প্রার্থী হয়েছে। আমি বিশ্বাস করি ৪২টি কেন্দ্রে সবচেয়ে বেশি ভোটে দেব জয়ী হবে।"