দশম শ্রেণির ছাত্রীকে গণধর্ষণ, সংজ্ঞাহীন অবস্থায় উদ্ধার রাস্তা থেকে

টিউশন থেকে বাড়ি ফেরার রাস্তায় সংজ্ঞাহীন অবস্থায় উদ্ধার করা হয় ওই কিশোরীকে।

Updated By: Jan 4, 2019, 02:38 PM IST
দশম শ্রেণির ছাত্রীকে গণধর্ষণ, সংজ্ঞাহীন অবস্থায় উদ্ধার রাস্তা থেকে

নিজস্ব প্রতিবেদন : নাবালিকাকে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠল প্রতিবেশীর বিরুদ্ধে। অভিযোগ, মাধ্যমিক পরীক্ষার্থী এক কিশোরীকে গণধর্ষণ করে দুই প্রতিবেশী যুবক। ঘটনাটি ঘটেছে পশ্চিম মেদিনীপুরের ডেবরার দুই নম্বর ভরতপুর অঞ্চলে।

আরও পড়ুন, জেলা হাসপাতাল বা মেডিক্যাল কলেজে ডাক্তার দেখাতে গেলে এবার থেকে লাগবে এই কার্ড

জানা গিয়েছে, বুধবার সন্ধ্যায় টিউশন সেরে বাড়ি ফিরছিল ওই কিশোরী। অভিযোগ, সেই সময় বাড়ি ফেরার পথে প্রতিবেশী দুই যুবক ওই কিশোরীর পথ আটকায়। তারপর রাস্তাতেই দুজনে ধর্ষণ করে ওই কিশোরীকে। গণধর্ষণের পর সংজ্ঞাহীন অবস্থায় ওই ছাত্রীকে রাস্তার ধারে ফেলে রেখে দিয়ে যায় তারা।

আরও পড়ুন, খড়দহ গণধর্ষণকাণ্ডে আটক ৩, নির্যাতিতার বয়ানও খতিয়ে দেখছে পুলিস

কিশোরী টিউশন থেকে সময়মতো বাড়ি না ফিরলে, শুরু হয় খোঁজ। টিউশন থেকে বাড়ি ফেরার রাস্তায় সংজ্ঞাহীন অবস্থায় উদ্ধার করা হয় ওই কিশোরীকে। গুরুতর জখম ওই ছাত্রীকে নিয়ে যাওয়া হয় ডেবরা সুপার স্পেশালিটি হসপিটালে। পরে সেখান থেকে ওই কিশোরীকে মেদিনীপুর মেডিক্যালে স্থানান্তরিত করা হয়।

আরও পড়ুন, বিনামূল্যে চক্ষু পরীক্ষা শিবিরের নামে ওষুধ বিক্রির ছক, জালে ভুয়ো ডাক্তার

হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে, ওই কিশোরীর শারীরিক পরিস্থিতি আশঙ্কাজনক। এই ঘটনায় ডেবরা থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। পুলিস ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে। অভিযুক্তদের খোঁজে তল্লাশি শুরু হয়েছে। অন্যদিকে, এদিন সকালে মেদিনীপুর মেডিক্যাল কলেজ-হাসপাতালে ওই ছাত্রীর ডাক্তারি পরীক্ষা করা হয়েছে।