নার্সিংহোমে ঢোকা নিয়ে বচসা, রোগীর আত্মীয়কে গুলির অভিযোগ কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে

করোনা আবহে একজনের বেশি রোগীর আত্মীয়দের ঢোকার নিয়ম নেই নার্সিংহোমে। ফলে আত্মীয়দের ঢুকতে বাধা দেয় নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষ। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করেই হাসপাতালের কর্মী ও রোগীর আত্মীয়দের মধ্যে বচসা শুরু হয়।

Updated By: Jul 28, 2020, 09:39 PM IST
নার্সিংহোমে ঢোকা নিয়ে বচসা, রোগীর আত্মীয়কে গুলির অভিযোগ কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে

নিজস্ব প্রতিবেদন: রোগীর আত্মীয়দের নার্সিংহোমে ঢোকা নিয়ে বচসা, রোগীর তাঁদের লক্ষ্য করে চার রাউন্ড গুলি ছোড়ার অভিযোগ উঠল হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর 24 পরগনার বনগাঁ সুভাষপল্লী এলাকায়। জানা গিয়েছে, বৃষ্টির মধ্যে নার্সিংহোমে ঢুকতে চায় রোগীর আত্মীয়রা। 

করোনা আবহে একজনের বেশি রোগীর আত্মীয়দের ঢোকার নিয়ম নেই নার্সিংহোমে। ফলে আত্মীয়দের ঢুকতে বাধা দেয় নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষ। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করেই হাসপাতালের কর্মী ও রোগীর আত্মীয়দের মধ্যে বচসা শুরু হয়। নার্সিংহোমে এক কর্মীর ইশারায় রোগীর আত্মীয়দের লক্ষ্য করে পরপর চার রাউন্ড গুলি চালানোর অভিযোগ উঠে এক যুবকের বিরুদ্ধে। 

সূত্রের খবর, ছবি কুন্ডু নামে এক গর্ভবতী মহিলা ৩-৪দিন আগে বনগাঁ সুভাষ পল্লী এলাকায় বিভূতিভূষণ বেসরকারি নার্সিংহোমে ভর্তি হন। মঙ্গলবার বাচ্চা ও মাকে ছুটি দেওয়ার কথা ছিল। তাদের নিতে রোগীর আত্মীয়রা মঙ্গলবার বিকালে নার্সিংহোমে আসেন। হঠাৎ বৃষ্টি শুরু হওয়ায় নার্সিংহোমে ভিতরে ঢুকতে চায় তাঁরা। কিন্তু নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষ জানিয়ে দেয় একজনের বেশি রোগীর আত্মীয় নার্সিংহোমে ঢোকার নির্দেশ নেই। যা নিয়ে রোগীর পরিবারের ও নার্সিংহোমের কর্মীদের মধ্যে বচসা শুরু হয় ও রোগীর আত্মীয়দের মারধর করার হয়। 

অভিযোগ, সেই সময় নার্সিংহোমের অমিত নামের এক কর্মী বাইরে থেকে ফোন করে লোক ডাকেন। কিছু সময়ের মধ্যে এক যুবক নার্সিংহোমের সামনে বাইক নিয়ে এসে, রোগীর আত্মীয়দের লক্ষ্য করে পরপর চার রাউন্ড গুলি ছোড়েন এবং বাইক নিয়ে এলাকা ছেড়ে চম্পট দেয়। একটুর জন্য রক্ষা পেয়ে যান রোগীর আত্মীয়রা। খবর যায় বনগাঁ থানায়,  পুলিস এসে গুলির কার্তুজ উদ্ধার করেছে। যদিও ঘটনার পরে নার্সিং