close

News WrapGet Handpicked Stories from our editors directly to your mailbox

Google-এ ঘুরছে অসংখ্য ‘নকল’ ফোন ব্যাঙ্কিং অ্যাপ! কতটা সুরক্ষিত আপনার অ্যাকাউন্ট?

Google অ্যাপে ইদানীং বেশ কয়েকটি ব্যাঙ্কের ভুয়ো অ্যাপ ঘোরাফেরা করছে। এর মধ্যে আপনার ব্যাঙ্কের নাম নেই তো!

Sudip Dey | Updated: Mar 31, 2019, 12:02 PM IST
Google-এ ঘুরছে অসংখ্য ‘নকল’ ফোন ব্যাঙ্কিং অ্যাপ! কতটা সুরক্ষিত আপনার অ্যাকাউন্ট?
--প্রতীকী চিত্র।

নিজস্ব প্রতিবেদন: হ্যাকারের হাত থেকে বর্তমানে কেউই তেমন নিরাপদ নয়। কোনও সেলিব্রিটির সোশ্যাল অ্যাকাউন্ট, বিভিন্ন সংস্থা, এমনকি সরকারি প্রতিষ্ঠানের ওয়েবসাইটও হ্যাক হওয়ার মতো ঘটনা এখন আখচার ঘটছে। আর আপনি যদি মোবাইল ব্যাঙ্কিং-এ বেশি স্বচ্ছন্দ হন এবং নিয়মিত ফোন থেকেই বিভিন্ন আর্থিক লেনদেন করে থাকেন, তাহলে আপনার বিপদ যে কোনও সময়েই হতে পারে। কারণ, Google-এই রয়েছে আপনার ব্যাঙ্কের অ্যাপগুলি মতো দেখতে হুবহু ‘নকল’ অ্যাপ!

মাস খানেক আগে একটি চাঞ্চল্যকর রিপোর্টে সামনে এসেছে। এই রিপোর্টে একটি তথ্যসুরক্ষা সংস্থার পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে, Google অ্যাপে ইদানীং বেশ কয়েকটি ব্যাঙ্কের ভুয়ো অ্যাপ ঘোরাফেরা করছে। এই তালিকায় রয়েছে অ্যাক্সিস ব্যাঙ্ক, ইয়েস ব্যাঙ্ক, ব্যাঙ্ক অব বরোদা, স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া, সিটি ব্যাঙ্ক, আইসিআইসিআই, ইন্ডিয়ান ওভারসিজ ব্যাঙ্কের নাম। রিপোর্ট অনুযায়ী, এই সব ভুয়ো অ্যাপগুলি দেখতে অবিকল ব্যাঙ্কের আসল অ্যাপগুলির মতোই। তাই কোনও গ্রাহকের পক্ষে দেখে সহজে বোঝা সম্ভব নয় যে, কোনটি আসল আর কোনটি নকল অ্যাপ। ফলে গ্রাহকরা নিজের অজান্তেই এই সব ভুয়ো অ্যাপ নিজেদের মোবাইলে ডাইনলোড করছেন আর তাঁদের ব্যক্তিগত তথ্য-সহ বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ নথি পৌঁছে যাচ্ছে ব্যাঙ্ক জালিয়াতদের কাছে।

আরও পড়ুন: আপনার ফোনে কি কেউ আড়ি পাতছে? কী করে বুঝবেন, জেনে নিন

অ্যান্ড্রয়েড ফোনে ভুয়ো অ্যাপ নতুন কিছু নয়। বিনা সুদে ঋণ দেওয়ার অফার বা নানা রকম পুরস্কারের নামে প্রতারনার ফাঁদ পেতে গ্রাহকদের মোবাইলে এই ভুয়ো অ্যাপ ডাউনলোড করতে বলছে হ্যাকাররা। আর ভুয়ো অ্যাপ একবার ডাউনলোড হয়ে গেলেই গ্রাহকের মোবাইলে থাকা যাবতীয় গুরুত্বপূর্ণ তথ্য অনায়াসে পেয়ে যাবে ব্যাঙ্ক জালিয়াতরা। সুতরাং, মোবাইল ব্যাঙ্কিং বা ফোন ব্যাঙ্কিং-এর জন্য অ্যাপ ডাউনলোড করার আগে কোনও রকম অফারের ফাঁদে পা না দেওয়ারই পরামর্শ দিয়েছেন তথ্যসুরক্ষা সংস্থার বিশেষজ্ঞরা।

সংবাদসংস্থা পিটিআই সূত্রে জানা গিয়েছে, তথ্যসুরক্ষা সংস্থার তালিকায় থাকা ওই সব ব্যাঙ্কগুলির মধ্যে বেশ কয়েকটি ব্যাঙ্ক ইতিমধ্যেই বিষয়টি নিয়ে অন্তবর্তী তদন্ত শুরু করে দিয়েছে। জানানো হয়েছে, কম্পিউটার সুরক্ষা সংক্রান্ত কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা ‘সার্ট-ইন’-কেও। তবে ব্যাঙ্ক জালিয়াতদের হাত থেকে বাঁচতে ব্যাঙ্কগুলির সঙ্গে সঙ্গে তার গ্রাহকদেরও সতর্ক হওয়া বিশেষ জরুরি।