সরকারি নির্মাণ কাজের সময় পে লোডারে ভাঙা দেওয়াল চাপা পড়ে মৃত্যু ৪ বছরের শিশুর

ওই চত্বরেই টায়ার নিয়ে খেলছিল বছর চারেকের সুরজিত সর্দার ও তার এক সঙ্গী।

Updated By: Jun 26, 2019, 03:12 PM IST
সরকারি নির্মাণ কাজের সময় পে লোডারে ভাঙা দেওয়াল চাপা পড়ে মৃত্যু ৪ বছরের শিশুর

নিজস্ব প্রতিবেদন : মর্মান্তিক। সরকারি প্রজেক্টের কাজ চলার সময় দেওয়াল ভেঙে মৃত্যু হল ৪ বছরের শিশুর। ঘটনাটি ঘটেছে আনন্দপুরের নোনাডাঙায়। পে লোডারে ভাঙা দেওয়ালে চাপা পড়ে মৃত্যু হল ৪ বছরের সুরজিতের। কোনও রকম সতর্কতামূলক ব্যবস্থা ছাড়াই কী ভাবে চলছিল কাজ? ঘটনার পর উঠছে প্রশ্ন।

ঘড়ির কাঁটায় তখন সকাল সাড়ে ৯টা। বাইপাস সংলগ্ন আনন্দপুরের নোনাডাঙায় সরকারি প্রকল্পের অস্থায়ী ছাউনি ভাঙার কাজ শুরু করে পে লোডার। একের পর এক ছাউনি যখন পে লোডার দিয়ে ভেঙে ফেলা হচ্ছে, তখনই ঘটে বিপত্তি। ওই চত্বরেই টায়ার নিয়ে খেলছিল বছর চারেকের সুরজিত সর্দার ও তার এক সঙ্গী। পে লোডারে ভাঙা দেওয়াল গিয়ে পড়ে ছোট্ট সুরজিতের ওপর। ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় ছোট্ট সুরজিতের।

দেওয়ালের ধ্বংসাবশেষ থেকে উদ্ধার করে শিশুটিকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। চিকিত্‍সকরা সেখানে তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। এই খবর আসার পরই ক্ষোভে ফেটে পড়েন বাসিন্দারা। কোনও সতর্কতামূলক ব্যবস্থা ছাড়াই কীভাবে এই কাজ করা হল? প্রশ্ন তুলে বিক্ষোভে সামিল হন স্থানীয়রা।

আরও পড়ুন, ভারতী ঘোষকে নিরাপত্তা দিতে গিয়ে বিজেপি কর্মীদের হাতে নিগৃহীত মহিলা পুলিস কর্মী

নিরাপত্তাবিহীনভাবে কাজ করার জন্যই এতবড় দুর্ঘটনা ঘটল বলে অভিযোগ বাসিন্দাদের। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছয় আনন্দপুর থানার পুলিস। ধীরে ধীরে স্বাভাবিক হয় পরিস্থিতি।