সংখ্যালঘু ছাত্রছাত্রীদের আন্দোলনের জেরে ক্ষতিগ্রস্ত হন সংখ্যাগুরু পড়ুয়ারা, যাদবপুর প্রসঙ্গে বিতর্কিত মন্তব্য বিচারপতির

শিক্ষাক্ষেত্রে আন্দোলন করে কুড়ি শতাংশ ছাত্রছাত্রী। কিন্তু তার জন্য আশি শতাংশ ছাত্রছাত্রীর ক্ষতি হয়। যাদবপুরকাণ্ড নিয়ে জনস্বার্থ মামলার শুনানিতে আজ এই মন্তব্য করেছেন কলকাতা হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি মঞ্জুলা চেল্লুর। যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে অচলাবস্থা কাটাতে রাজ্য সরকার কী ব্যবস্থা নিয়েছে, তা জানতে চেয়েছেন তিনি।  বুধবারের মধ্যে এবিষয়ে হলফনামা দিতে হবে রাজ্যকে।

Updated By: Sep 19, 2014, 09:40 PM IST
সংখ্যালঘু ছাত্রছাত্রীদের আন্দোলনের জেরে ক্ষতিগ্রস্ত হন সংখ্যাগুরু পড়ুয়ারা, যাদবপুর প্রসঙ্গে বিতর্কিত মন্তব্য বিচারপতির

কলকতা: শিক্ষাক্ষেত্রে আন্দোলন করে কুড়ি শতাংশ ছাত্রছাত্রী। কিন্তু তার জন্য আশি শতাংশ ছাত্রছাত্রীর ক্ষতি হয়। যাদবপুরকাণ্ড নিয়ে জনস্বার্থ মামলার শুনানিতে আজ এই মন্তব্য করেছেন কলকাতা হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি মঞ্জুলা চেল্লুর। যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে অচলাবস্থা কাটাতে রাজ্য সরকার কী ব্যবস্থা নিয়েছে, তা জানতে চেয়েছেন তিনি।  বুধবারের মধ্যে এবিষয়ে হলফনামা দিতে হবে রাজ্যকে।

যাদবপুরের সেই রাতে ঠিক কী ঘটেছিল তা জানতে পুলিস ও ছাত্রছাত্রী দুপক্ষকেই ডাকলেন রাজ্যপাল। আজ কলকাতার পুলিস কমিশনারকে ডেকে পাঠান রাজ্যপাল। আগামিকাল তাঁর সঙ্গে দেখা করবেন আন্দোলনরত ছাত্রছাত্রীরা।  ছাত্রছাত্রীদের ওপর পুলিসি হামলার প্রতিবাদে আন্দোলনের জেরে অচলাবস্থা অব্যাহত যাদবপুর বিশ্ববদ্যালয়ে। বিশ্ববিদ্যালয়ে পঠনপাঠনের পরিবেশ ফিরিয়ে আনতে ব্যবস্থা করা হোক।  শুক্রবার এই মর্মে কলকাতা হাই কোর্টে  জনস্বার্থ মামলা দায়ের করেন অধ্যাপক বিমলশঙ্কর নন্দ। মামলার শুনানিতে কলকাতা হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি মঞ্জুলা চেল্লুর বলেন,

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে যেকোনও আন্দোলনে কুড়ি শতাংশ ছাত্রছাত্রী যুক্ত থাকেন। কিন্তু ক্ষতিগ্রস্ত হন বাকি আশি শতাংশ ছাত্রছাত্রী। তাই এবিষয়ে রাজ্য সরকারের হস্তক্ষেপ করা উচিত।

এদিন হাইকোর্টে বিশ্ববিদ্যালয়ের আইনজীবী জানান, বিশ্ববিদ্যালয়ে অবাধে যাতায়াত করছেন বহিরাগতরা। এই জনস্বার্থ মামলা নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেন ছাত্রছাত্রীদের পক্ষে দাঁড়ানো আইনজীবীরা।

যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের ঘটনায় উপাচার্যের পদত্যাগ চেয়ে বৃহস্পতিবার রাজ্যপালের দ্বারস্থ হয় সিপিআইএম ও বিজেপি। রাজ্যপালের সঙ্গে দেখা করে একই দাবি পেশ করে কংগ্রেস। যাদবপুরে ঠিক কী ঘটেছে জানতে এবার পুলিস ও ছাত্রছাত্রী দুপক্ষকেই ডেকে পাঠান রাজ্যপাল কেশরীনাথ ত্রিপাঠি। শুক্রবার তাঁর সঙ্গে দেখা করেন পুলিস কমিশনার। শনিবার রাজভবনে যাবেন যাদবপুরের আন্দোলনকারী  ছাত্রছাত্রীরা।