আমি নরেন্দ্র মোদী নই, 'বাঘিনী' নিয়ে বললেন মমতা

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বায়োপিক 'বাঘিনি'র ট্রেলার মুছে ফেলার নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। কমিশনের নির্দেশের পর মমতা স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন, ওই ছবিটির সঙ্গে তাঁর কোনও যোগ নেই। 

Updated By: Apr 24, 2019, 08:27 PM IST
আমি নরেন্দ্র মোদী নই, 'বাঘিনী' নিয়ে বললেন মমতা

নিজস্ব প্রতিবেদন: মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বায়োপিক 'বাঘিনী'র ট্রেলার মুছে ফেলার নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। কমিশনের নির্দেশের পর মমতা স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন, ওই ছবিটির সঙ্গে তাঁর কোনও যোগ নেই। 

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দীর্ঘ রাজনৈতিক জীবনের আধারে তৈরি হয়েছে 'বাঘিনী'। ছবিটির ট্রেলার ছড়িয়ে পড়ে ইউটিউব-সহ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। এরপরই বিরোধীরা আদর্শ আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগ নিয়ে দ্বারস্থ হয় নির্বাচন কমিশনের। বিরোধীদের অভিযোগের প্রেক্ষিতে কমিশন নির্দেশ দিয়েছে, ছবির ট্রেলার ফেসবুক, ইউটিউব থেকে মুছে দিতে হবে। 

বিরোধীরা অভিযোগ করেছিল, নরেন্দ্র মোদীর বায়োপিক নিয়ে কটাক্ষ করেছেন মমতা। অথচ নিজেই সেই দোষে দুষ্ট। এ তো দ্বিচারিতা। বুধবার টুইটারে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় স্পষ্ট করলেন, বায়োপিকের সঙ্গে তাঁর কোনও যোগ নেই। তিনি লিখেছেন, ''কী সব ছাঁইপাশ আমার নামে রটানো হচ্ছে! বায়োপিকের সঙ্গে আমার কোনও সম্পর্কই নেই। যদি কয়েকজন যুবক-যুবতী কাহিনি নিয়ে একটা ছবি করেন, সেটা তাঁদের ইচ্ছা। এটার সঙ্গে আমাদের যোগ নেই। আমি নরেন্দ্র মোদী নই। দয়া করে মিথ্যা রটাবেন না। নচেত্ মানহানির মামলা করতে বাধ্য হব''।                      
                 

প্রসঙ্গত, নরেন্দ্র মোদীর বায়োপিকে অভিনয় করেছেন বিবেক ওবেরয়। ছবিটি মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল প্রথম দফার নির্বাচনের আগে। মুক্তি স্থগিত করেছে নির্বাচন কমিশন। অন্যদিকে একটি ওয়েব সিরিজের সম্প্রচারও বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। বিবেক অভিনীত মোদীর বায়োপিক নিয়ে সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হন প্রযোজকরা। মামলার শুনানিতে নির্বাচন কমিশনের আধিকারিকদের ছবিটি দেখে রিপোর্ট দিতে নির্দেশ দেয় শীর্ষ আদালত।       

আরও পড়ুন- মোদী-শাহকে বিঁধে কৃষ্ণনগরের সভায় নিজের গোত্র জানালেন মমতা