তৃতীয় ঢেউয়ের আশঙ্কায় ১২ বছর পর্যন্ত শিশুর মায়েদের টিকায় অগ্রাধিকার: Mamata

তৃতীয় ঢেউয়ের আগে স্বাস্থ্য পরিকাঠামোয় কোনও খামতি রাখতে চান না মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)। 

Updated By: Jun 23, 2021, 09:40 PM IST
তৃতীয় ঢেউয়ের আশঙ্কায় ১২ বছর পর্যন্ত শিশুর মায়েদের টিকায় অগ্রাধিকার: Mamata

নিজস্ব প্রতিবেদন: করোনার তৃতীয় ঢেউয়ের অশনি সঙ্কেত। শিশুদের আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা প্রকাশ করা হয়েছে একাধিক গবেষণাপত্রে। তেমন পরিস্থিতি সামলাতে আগেভাগে বন্দোবস্ত করে রাখছে রাজ্য সরকার। একইসঙ্গে শিশুর মায়েদের টিকাকরণেও অগ্রাধিকার দেওয়া হচ্ছে। বুধবার নবান্নে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee) ঘোষণা করেন, ১২ বছর পর্যন্ত শিশুর মায়েদের টিকাকরণে (COVID Vaccination) অগ্রাধিকার দেওয়া হবে। 

দ্বিতীয় ঢেউ অনেকখানি স্তিমিত। মুখ্যমন্ত্রী (CM Mamata Banerjee) এ দিন জানিয়েছেন, ৮ দফার নির্বাচনের পর রাজ্যে কোভিড সংক্রমণ হার চলে গিয়েছিল ৩৩ শতাংশে। সেটাই কমে হয়েছে ৩.৬১ শতাংশ। তৃতীয় ঢেউ আছড়ে পড়ার আশঙ্কাও রয়েছে মুখ্যমন্ত্রীর। তাতে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা শিশুদের। সে কারণে শিশুর মায়েদের টিকাকরণে জোর দিচ্ছে রাজ্য সরকার। মমতা এ দিন বলেন, 'কিছু কিছু দেশ বা বিশেষজ্ঞরা বলছেন তৃতীয় ঢেউয়ে বাচ্চারা সংক্রামিত হতে পারে। ছোট্ট বাচ্চা থেকে ১২ বছর পর্যন্ত শিশু, যারা মায়ের আঁচলে থাকে, তারা অনেকটাই মায়ের উপরে নির্ভরশীল। ওই মায়েদের অগ্রাধিকার ভিত্তিতে টিকা (COVID Vaccination) করিয়ে দেব। যাতে মায়ের কাছে থেকে বাচ্চাটা সংক্রামিত না হতে পারে।'

তৃতীয় ঢেউয়ের আগে স্বাস্থ্য পরিকাঠামোয় কোনও খামতি রাখতে চায় না রাজ্য সরকার। কোভিড পরিস্থিতি এবং টিকাকরণ নিয়ে এ দিন পর্যালোচনা বৈঠক করেন মুখ্যমন্ত্রী। তার পর সাংবাদিক বৈঠকে মুখ্যসচিব হরিকৃষ্ণ দ্বিবেদী জানান, ৩০ হাজার কোভিড শয্যা রয়েছে রাজ্যে। এখন সংক্রমণ কমায় অনেক শয্যাই ফাঁকা পড়ে। শিশুদের ভেন্টিলেটর ও অন্যান্য যন্ত্রপাতি বাড়ানো হচ্ছে। জুলাইয়ের মধ্যে শিশুদের জন্য ১৩০০ আইসিইউ তৈরি করা হচ্ছে। থাকবে ৩৫০ এসএনসিইউ। এর পাশাপাশি ১০ হাজার সাধারণ শয্য়ার ব্যবস্থাও থাকছে। জোর বাড়ানো হচ্ছে অক্সিজেন সরবরাহে।

টিকাকরণে (COVID Vaccination) বাংলা ভালো কাজ করেছে বলে দাবি করেন মমতা (Mamata Banerjee) । তাঁর কথায়,'২ কোটির মতো টিকার ডোজ দিয়েছি বাংলায়। ৩৩ লক্ষ ডোজ দেওয়া হয়েছে সুপার স্প্রেডারদের। গাড়ির চালক, সবজিওয়ালা থেকে নির্মাণকর্মীদের টিকা দেওয়া হয়েছে। আগামী ১০ দিনে সংক্রমণ আরও কমিয়ে ফেলব। প্রতিদিন ৩ লক্ষ ডোজ দিচ্ছি। প্রধানমন্ত্রী সময় নেওয়ায় ৭-৮ দিনের একটা শূন্যস্থান তৈরি হয়েছে। আমরা ৩ লক্ষ থেকে বাড়িয়ে প্রতিদিন ৪ লক্ষ করে টিকাকরণ করব বলে ঠিক করেছি। আমরা ৩ কোটি ডোজের দাবি করেছিলাম। সেটা পাইনি। ৩ কোটি ডোজ পেলে বেসরকারিকে হাসপাতালকে ১ কোটি দিতাম। ২ কোটি আমরা নিতাম। তাহলে অনেকটা কাজ হয়ে যেত। কাল থেকে ৪ লক্ষ করে টিকা দেওয়া শুরু হবে। জুলাই মাসের মধ্যে ৭০ লক্ষ ভ্যাকসিন দেব। প্রায় ৩ কোটির কাছাকাছি পৌঁছে যাব।' 

আরও পড়ুন- আলাপনের মতো অফিসার দেখান! ওকে পূর্ণ সহযোগিতা করব, 'সেলফিশ জায়ান্ট' খোঁচা Mamata-র

(Zee 24 Ghanta App দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির লেটেস্ট খবর পড়তে ডাউনলোড করুন Zee 24 Ghanta App)