পটনা সাহিব লোকসভা কেন্দ্রে শত্রুঘ্নকে প্রার্থী করছে না বিজেপি: সূত্র

বিভিন্ন সময়ে দল বিরোধী মন্তব্য করেছেন শত্রুঘ্ন। বিরোধী শিবিরেও দেখা গিয়েছে তাঁকে। 

Updated By: Sep 19, 2018, 05:38 PM IST
পটনা সাহিব লোকসভা কেন্দ্রে শত্রুঘ্নকে প্রার্থী করছে না বিজেপি: সূত্র

নিজস্ব প্রতিবেদন: পটনা সাহিব লোকসভা কেন্দ্রে শত্রুঘ্ন সিনহাকে আর প্রার্থী করছে না বিজেপি। ওই কেন্দ্রে বিজেপির প্রার্থী হতে পারেন সুশীল কুমার মোদী। বিজেপি সূত্রের খবর, দল বিরোধী অবস্থানের জন্য শত্রুঘ্নকে টিকিট দেওয়া হবে না। প্রসঙ্গত, বিহারের উপমুখ্যমন্ত্রী সুশীল কুমার মোদী।   

২০১৪ সালে মোদী সরকার ক্ষমতায় আসার পর থেকেই দলের বিরুদ্ধে সরব শত্রুঘ্ন। এমনকি নরেন্দ্র মোদীকেও বিঁধেছেন পটনা সাহিবের সাংসদ। অটল বিহারী বাজপেয়ীর জমানায় কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ছিলেন শত্রুঘ্ন সিনহা। নিজের জন্মস্থান পটনা সাহিব থেকে দ্বিতীয়বার সাংসদ হয়েছেন বলিউড অভিনেতা। অনেকের মতে, মন্ত্রিত্ব না পেয়ে গোঁসা হয়েছিল শত্রুঘ্নর। সেই থেকেই দলে কোণঠাসা তিনি। 

তবে বিজেপি টিকিট না দিলেও পটনা সাহিব থেকে তিনি যে ভোটে লড়াই করবেন, তার ইঙ্গিত ইতিমধ্যেই দিয়েছেন শত্রুঘ্ন সিনহা। চলতি বছরের মে মাসেই শত্রুঘ্ন বলেছিলেন,''পরিস্থিতি বদলে গেলেও জায়গা (লোকসভা কেন্দ্র) বদলাবে না''। উল্লেখ্য, দিন কয়েক আগে নয়ডায় আপের সভায় হাজির হয়েছিলেন শত্রুঘ্ন সিনহা। ওই সভায় শত্রুঘ্নর সঙ্গে হাজির হয়েছিলেন যশবন্ত সিনহাও। সম্প্রতি বিজেপির সদস্যপদ ত্যাগ করেছেন প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী। ওই দিনের সভা থেকে দুজনেই কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে তোপ দেগেছেন। তার আগে গুজরাটে হার্দিক পান্ডিয়ার অনশনমঞ্চেও দেখা গিয়েছিল যশবন্ত-শত্রুঘ্নকে। লালুপ্রসাদ যাদব, পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গেও দেখা গিয়েছে শত্রুঘ্ন সিনহাকে। দিন কয়েক আগে তিনি বলেছিলেন, ''সততা ও স্বচ্ছতা একসঙ্গে যায় না। রাফাল চুক্তি নিয়ে বেকায়দায় পড়েছে তথাকথিত স্বচ্ছ সরকার। ডলার নিরিখে টাকার অবমূল্যায়ন সামলাতে ব্যর্থ এই ব্যবস্থাপনা। পেট্রোল-ডিজেলের দর নিয়ন্ত্রণেও ব্যর্থ সরকার।  শীতাতপ নিয়ন্ত্রণ ঘরে, মন্ত্রী-মুখপাত্রদের মাঝে না থেকে খোলস থেকে বেরিয়ে কখন আপনি ব্যাখ্যা দেবেন? এটা অহংকার না অদক্ষতা? জনতা সব জানে''। 

বিভিন্ন সময়ে দল বিরোধী মন্তব্য করলেও শত্রুঘ্নর বিরুদ্ধে কোনও ব্যবস্থা নেননি মোদী-শাহ। এমনকি শত্রুঘ্নের মন্তব্যে প্রতিক্রিয়াও জানায়নি বিজেপি। কার্যত শত্রুঘ্নকে নীরব অবজ্ঞার কৌশল নিয়েছে দল। ফলে প্রত্যাশিতভাবেই বিজেপির টিকিট তিনি পাবেন না।

আরও পড়ুন- মুসলিমদের সঙ্গে নিয়ে চলাই আসল হিন্দুত্ব, বললেন মোহন ভাগবত