ছাড়তে হবে ইদগাহ; রাম জন্মভূমির পর শ্রীকৃষ্ণের জন্মস্থান, মামলা গড়াল আদালতে

ওই মামলায় শ্রীকৃষ্ণ জন্মস্থান সেবাসংঘ-এর বিরুদ্ধেও আঙুল তোলা হয়েছে। দাবি করা হয়েছে, ১৯৬৮ সালে শ্রীকৃষ্ণ জন্মস্থান সেবাসঙ্ঘ ইদগাহ কমিটিকে জমি ছেড়ে দেয়

Edited By: সিকান্দর আবু জ়াফর | Updated By: Sep 26, 2020, 05:02 PM IST
ছাড়তে হবে ইদগাহ; রাম জন্মভূমির পর শ্রীকৃষ্ণের জন্মস্থান, মামলা গড়াল আদালতে

নিজস্ব প্রতিবেদন: রাম জন্মভূমির পর এবার শ্রীকৃষ্ণের জন্মভূমি। জমি ফেরত চেয়ে মামলা উঠল মথুরা আদালতে। 

মথুরায় শ্রীকৃষ্ণের জন্মস্থান ও মন্দির চত্বরেই গড়ে উঠেছে ইদগাহ বা ইদের নামাজ পড়ার জায়গা। তাই ওই ইদগাহ অন্যত্র সরিয়ে নিতে হবে। ফেরত দিতে হবে মন্দির চত্বরের ১৩.৩৭ একর জমি। এরকম এক দাবি করে একটি মামলা হল মথুরার আদালতে। 'ভগবান শ্রীকৃষ্ণ বিরাজমান' এর তরফে মামলাটি করেছেন লখনউয়ের রঞ্জনা অগ্নিহোত্রি নামে এক মহিলা।

আরও পড়ুন-উদ্ধার বিপুল চিনা অস্ত্র-ড্রোন, ISI-কে সামনে রেখে কাশ্মীরে ভারতকে ব্যস্ত রাখতে চাইছে বেজিং!

আদালতে করা আবেদনে দাবি করা হয়েছে, সুন্নি ওয়াকফ বোর্ডে সম্মতিতে ইদগাহের ওই জায়গা জবরদখল করা হয়েছে। ওই জমি আসলে ভাগবান শ্রীকৃষ্ণ বিরাজমানের। সেবাইয় হিসেবে ওই জমি উদ্ধার করার ভার বিরাজমানের।

আরও পড়ুন-কেরল যোগে জলঙ্গি থেকে 'আটক' আরও এক যুবক! সন্দেহ গোটা এলাকায়

এদিকে, ওই মামলায় শ্রীকৃষ্ণ জন্মস্থান সেবাসংঘ-এর বিরুদ্ধেও আঙুল তোলা হয়েছে। দাবি করা হয়েছে, ১৯৬৮ সালে শ্রীকৃষ্ণ জন্মস্থান সেবাসঙ্ঘ ইদগাহ কমিটিকে জমি ছেড়ে দেয়। কিন্তু ওই জমি ছেড়ে দেওয়ার কোনও এক্তিয়ার সঙ্ঘের নেই।  ইদগাহ যেখানে নির্মাণ করেছে তার নীচেই রয়েছে একটি কারাগার। সেখানেই জন্মছিলেন শ্রীকৃষ্ণ। মাটি খুঁড়লেই তা বেরিয়ে পড়বে।