দান্তেওয়াড়ায় মাওবাদী হামলায় বিজেপি বিধায়ক নিহত

প্রথমপর্বের প্রচার শেষ হতেই বড়সড় হামলার ঘটনা ঘটল। হামলা করল মাওবাদীরা। ছত্তিসগড়ের দান্তেওয়াড়ায় তাদের লক্ষ্য ছিল বিজেপির কনভয়। মঙ্গলবার বিকেলের পর ঘটনাটি ঘটে বলে জানা গিয়েছে।

Updated By: Apr 9, 2019, 06:55 PM IST
দান্তেওয়াড়ায় মাওবাদী হামলায় বিজেপি বিধায়ক নিহত

নিজস্ব প্রতিবেদন: প্রথমপর্বের প্রচার শেষ হতেই বড়সড় হামলার ঘটনা ঘটল। হামলা করল মাওবাদীরা। ছত্তিসগড়ের দান্তেওয়াড়ায় তাদের লক্ষ্য ছিল বিজেপির কনভয়। মঙ্গলবার বিকেলের পর ঘটনাটি ঘটে বলে জানা গিয়েছে।

এদিন ঘটনাটি ঘটেছে দান্তেওয়াড়ার কুয়াকোন্টা ও শ্যামগিরির মাঝখানে ঘটনাটি ঘটে। প্রচার শেষে সেখান দিয়ে ফিরছিল বিজেপি বিধায়ক ভীমা মাণ্ডবীর কনভয়। কনভয় লক্ষ্য করে আইইডি বিস্ফোরণ ঘটানো হয়।

ওই বিস্ফোরণেই নিহত হন বিজেপি বিধায়ক ভীমা মাণ্ডবী। তাঁর গাড়িটি একেবারে দুমড়ে-মুচড়ে গিয়েছে। ঘটনায় ছত্তিসগড়ের পাঁচজন পুলিস কর্মীও নিহত হয়েছেন বলে জানা গিয়েছে।

লোকসভা নির্বাচনের প্রথম দফার ভোট বৃহস্পতিবার, ১১ এপ্রিল। মঙ্গলবার ছিল প্রচারের শেষদিন। সূত্রের খবর, প্রচারেই গিয়েছিলেন বিজেপির ওই বিধায়ক। সেখান থেকেই ফেরার সময় তিনি মাওবাদীদের হামলার কবলে পড়লেন।

দান্তেওয়াড়া এমনিতেই মাওবাদী প্রভাবিত এলাকা হিসেবে পরিচিত। গত কয়েক বছরে ছত্তিসগড়ের ওই এলাকায় মাওবাদীদের বহু হামলা হয়েছে। আধাসেনার জওয়ান থেকে শুরু করে সাধারণ মানুষ, রাজনৈতিক নেতা, অনেকই মারা গিয়েছেন।

তাই প্রতিবার নির্বাচনের সময় দান্তেওয়াড়া-সহ মাও অধ্যুষিত এলাকাগুলিতে নিরাপত্তার বাড়িতে ব্যবস্থা করা থাকে। এবারও তা আছে। কিন্তু এই হামলা পুলিস-প্রশাসনের কপালে চিন্তার ভাঁজ ফেলল।

প্রশাসন সূত্রে খবর, হামলার খবর মিলতেই দান্তেওয়াড়ার ঘটনাস্থলে সিআরপিএফ জওয়ানরা পৌঁছে গিয়েছেন। আহতদের হাসপাতালে পাঠানোর ব্যবস্থা করা হয়েছে। এলাকার নিরাপত্তার দিকটি নতুন করে খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে খবর।

তাপর্যপূর্ণভাবে মঙ্গলবার সকালেই হামলার মুখে পড়েন রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংঘের নেতা চন্দ্রকান্ত শর্মা। মঙ্গলবার সকালে ওই হামলা হয়। হামলার সময় ঘটনাস্থলেই জঙ্গিদের গুলিতে নিহত হন ওই নেতার ব্যক্তিগত নিরাপত্তারক্ষী।

আরও পড়ুন: কাশ্মীরের হাসপাতালে জঙ্গিহানায় মৃত্যু হল আহত RSS নেতার

সেই হামলায় ওই RSS নেতা গুরুতরভাবে জখম হন। হাসপাতালেই তাঁর চিকিত্সা শুরু হয়। পরে তাঁকে নিয়ে যাওয়া হয় জম্মু সিটি হাসপাতালে। কিন্তু তাঁকে বাঁচানো সম্ভব হয়নি। বিজেপি নেতা সুনীল শেঠী এই খবর দেন।