close

News WrapGet Handpicked Stories from our editors directly to your mailbox

নিশ্চিদ্র নিরাপত্তায় আজই রায় অযোধ্যা মামলার, জারি ১৪৪ ধারা, মধ্য রেলে বাড়ানো হয়েছে সুরক্ষা

রায় যাই হোক না কেন, দুই সম্প্রদায়ের নেতারাই সব পক্ষকে শান্ত থাকার জন্য আবেদন জানিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রীও অন্য মন্ত্রীদের অনাবশ্যক মন্তব্য করতে বারণ করেছেন

Updated: Nov 9, 2019, 06:46 AM IST
নিশ্চিদ্র নিরাপত্তায় আজই রায় অযোধ্যা মামলার, জারি ১৪৪ ধারা, মধ্য রেলে বাড়ানো হয়েছে সুরক্ষা
ফাইল চিত্র

নিজস্ব প্রতিবেদন: আজ অযোধ্যা মামলার রায়। তার আগে উত্তরপ্রদেশের মুখ্যসচিব এবং পুলিসের ডিজিকে ডেকে পাঠিয়ে নিরাপত্তাব্যবস্থার খোঁজ নিলেন প্রধান বিচারপতি। রায় ঘোষণার আগে সব রাজ্যকে সতর্ক করেছে কেন্দ্র। অযোধ্যা-সহ গোটা উত্তরপ্রদেশ মুড়ে ফেলা হয়েছে কড়া নিরাপত্তার চাদরে।

নিরাপত্তার প্রবল কড়াকড়ি। অযোধ্যা মামলার রায় ঘোষণার আগে দুর্গের চেহারা নিয়েছে মন্দিরনগরী। সব রাজ্যকে সতর্ক করে ইতিমধ্যেই চিঠি পাঠিয়েছে কেন্দ্র। নজর রাখতে বলা হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। উত্তরপ্রদেশে পৌঁছে গেছে চার হাজার আধাসেনা। শুধুমাত্র অযোধ্যা জেলাতেই মোতায়েন হয়েছে ১২ হাজার পুলিস।

১৭ নভেম্বর অবসর নিচ্ছেন প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈ। সোম ও মঙ্গলবার সুপ্রিম কোর্টে ছুটি থাকায় ১৩/১৪/১৫ নভেম্বরের মধ্যে যে কোনও দিন অযোধ্যা মামলার রায় ঘোষণা হতে পারে বলে প্রথমে জানা গিয়েছিল। সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসাবে ১০ই ডিসেম্বর পর্যন্ত, অযোধ্যা জেলায় জারি হয়েছে ১৪৪ ধারা। শুক্রবার, উত্তরপ্রদেশের মুখ্যসচিব রাজেন্দ্র কুমার তিওয়ারি এবং ডিজিপি ওম প্রকাশ সিংকে ডেকে পাঠান প্রধান বিচারপতি। সুপ্রিম কোর্টে নিজের চেম্বারে উত্তরপ্রদেশ পুলিস-প্রশাসনে ২ শীর্ষ আধিকারিকের সঙ্গে রাজ্যের নিরাপত্তা পরিস্থিতি পর্যালোচনা করেন তিনি।

রায় যাই হোক না কেন, দুই সম্প্রদায়ের নেতারাই সব পক্ষকে শান্ত থাকার জন্য আবেদন জানিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রীও অন্য মন্ত্রীদের অনাবশ্যক মন্তব্য করতে বারণ করেছেন। দেশবাসীকে সংযম বজায় রাখার আহ্বান জানিয়েছেন তিনি। পুলিস-প্রশাসনের অফিসারদের সঙ্গে দীর্ঘ বৈঠক সেরেছেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। জানানো হয়েছে, রাস্তায়, সোশ্যাল মিডিয়ায় উত্তেজনা ছড়ালে বা উস্কানি দিলে, জাতীয় নিরাপত্তা আইনে গ্রেফতার করা হবে। দূর গ্রামাঞ্চলে দুই সম্প্রদায়ের প্রতিনিধিদের সঙ্গে কথা বলা ও স্পর্শকাতর এলাকায় রাতে ক্যাম্প তৈরির জন্য পুলিসকে নির্দেশ দিয়েছেন যোগী আদিত্যনাথ।

আরও পড়ুন- আজ, শনিবার অযোধ্যা মামলার চূড়ান্ত রায় ঘোষণা করতে চলেছে সুপ্রিম কোর্ট

রাজ্যজুড়ে ২০টি অস্থায়ী কারাগার তৈরি করা হয়েছে। অযোধ্যা এবং লখনউয়ে রাখা হচ্ছে হেলিকপ্টার। অযোধ্যা রায়ের আগে সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নিচ্ছে রেলও। দিল্লি, মুম্বই-সহ সারা দেশের ৭৮টি বড় রেল স্টেশনের নিরাপত্তা বাড়ানো হয়েছে। গোটা দেশেই রেল সুরক্ষা বাহিনীর কর্মীদের ছুটি বাতিল করা হয়েছে। ৩০শে নভেম্বর পর্যন্ত অফিসারদের ছুটি বাতিল করেছে উত্তরপ্রদেশ সরকার।