close

News WrapGet Handpicked Stories from our editors directly to your mailbox

স্বপ্নপূরণ! পথ চলা শুরু হল প্রীতম-শৌভিকদের অ্যাকাডেমির

সুখেন্দু সরকার

Sukhendu Sarkar | Updated: Apr 21, 2019, 09:03 PM IST
স্বপ্নপূরণ! পথ চলা শুরু হল প্রীতম-শৌভিকদের অ্যাকাডেমির

ভারতীয় ফুটবল তাঁকে পিকে২০ নামেই চেনে। জাতীয় দলের নির্ভরযোগ্য ফুটবলার প্রীতম কোটাল। ফুটবলার হিসেবে আজ তিনি প্রতিষ্ঠিত। কিন্তু ফুটবলার হিসেবে প্রতিষ্ঠা পাওয়ার এই লড়াইটা এতো সহজ ছিল না। উত্তরপাড়ার নেতাজি ব্রিগেডে সঞ্জয় স্যারের কাছে ফুটবলের অ-আ-ক-খ শিখতে শিখতে বেড়ে ওঠা। অনেক বন্ধুর পথ পেরিয়ে আজ আইএসএলের মঞ্চে কিংবা জাতীয় দলের জার্সিতে নিজেকে মেলে ধরেছেন। গলি থেকে রাজপথে উত্তীর্ণ হয়েও অতীতকে ভোলেননি প্রীতম। ভোলেননি শৈশবের সেই দিন গুলি। ফুটবলকে কিছু ফিরিয়ে দিতেই অ্যাকাডেমি তৈরির ভাবনা উঁকি দেয় মনে।

ঠিক মতো সুযোগের অভাবে মুকুলেই ঝরে গিয়েছে অনেক ফুটবল প্রতিভা। আবার হয়তো হারিয়ে গিয়েছে সময়ের সঙ্গে সঙ্গে। তাই সেই প্রতিভার প্রকৃত বিকাশ যাতে হয়, বিশেষ করে এখনকার উঠতি ফুটবল প্রতিভার বিকাশে রবিবার থেকেই পথ চলা শুরু করল প্রীতমদের অ্যাকাডেমি। ডানকুনির বাকসা স্পোর্টিং অ্যাসোসিয়েশন ফুটবল অ্যাকাডেমির ভাবনা শুধু প্রীতমের একার নয়, সঙ্গে রয়েছেন সৌরভ দাস, নারায়ণ দাস, সামাদ আলি মল্লিক, রানা ঘরামি আর শৌভিক ঘোষের মতো ময়দানের ফুটবলাররাও। ছ'জনেই উত্তরপাড়ার নেতাজি ব্রিগেড থেকে উঠে এসেছেন। সকলে মিলে ফুটবলকে কিছু ফিরিয়ে দিতেই অ্যাকাডেমি গড়তে উদ্যোগী হন।

প্রীতম নিজেই বলছিলেন, "এটা আমাদের কাছে স্বপ্নপূরণ। অনেকদিন ধরেই ভাবছিলাম এমন একটা কিছু করতে হবে যাতে ফুটবলকে আমরা কিছু ফিরিয়ে দিতে পারি। আমি একা নই, সঙ্গে রয়েছে সৌরভ দাস, নারায়ণ দাস, সামাদ আলি মল্লিক, রানা ঘরামি আর শৌভিক ঘোষ। আমরা সবাই উত্তরপাড়ার নেতাজি ব্রিগেডে খুব কষ্ট করে বেড়ে উঠেছি। সঞ্জয় কাকুর কথা কোনওদিন ভুলব না । ওঁনার থেকেই শিখেছিলাম, ছোটদের সাহায্য করতে ভুলে যেও না। আর তাই এখনকার ফুটবলারদের পাশে দাঁড়াতেই আমরা অ্যাকাডেমি তৈরির ভবনা চিন্তা করি।আরও বেশি করে যাতে বাংলার ফুটবলার উঠে আসে সেটাই আমাদের প্রথম লক্ষ্য।"

ডানকুনির বাকসা স্পোর্টিং অ্যাসোসিয়েশন ফুটবল অ্যাকাডেমিতে কোচ কাম টিডি হিসেবে থাকছেন বর্তমানে অনুপ নাগ। ভবিষ্যতে বিদেশি কোচ নিয়ে এসে স্বদেশি কোচদের প্রশিক্ষণ দেওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে প্রীতমদের। আপাতত ১০ জনের থাকার ব্যবস্থা রয়েছে এই অ্যাকাডেমিতে। রেসিডেন্সিয়াল অ্যাকাডেমি হিসেবে গড়ে তুলতে অর্থের প্রয়োজন। কোনও স্পনসর সংস্থা এগিয়ে এলে ভবিষ্যতে এটিকে রেসিডেন্সিয়াল অ্যাকাডেমি গড়ার পরিকল্পনা রয়েছে তাঁদের।

রবিবার ডানকুনির বাকসা স্পোর্টিং অ্যাসোসিয়েশন ফুটবল অ্যাকাডেমির আনুষ্ঠানিক পথ চলা শুরু হল এক প্রীতি ম্যাচের মাধ্যমে। আর সেই ম্যাচে খেলতে তারকার মেলা। মোহনবাগানের হাইতিয়ান তারকা সোনি নর্দি থেকে মেহেতাব হোসেন, জবি জাস্টিন, বলবন্ত সিং, অরিন্দম ভট্টাচার্য, শিল্টন পাল, অভ্র মণ্ডল, রহিম নবি, প্রণয় হালদার, অর্নব মণ্ডল, মহম্মদ রফিক, আজহারউদ্দিন মল্লিক, সার্থক গোলুই, কিংশুক দেবনাথ, শৌভিক চক্রবর্তী, অরিজিত্ বাগুই, নারায়ণ দাস, সৌরভ দাস, প্রীতম কোটালরা সকলেই খেললেন সেই প্রীতি ম্যাচে।    

আরও পড়ুন - ICC World Cup 2019: জেটের বিপর্যয়ে বেকায়দায় টিম ইন্ডিয়ার বিশ্বকাপ যাত্রা!