Ind vs Aus: 'আমিই বোকা', সবার সামনে অশ্বিনের কাছে ক্ষমা চাইলেন পেইন

স্লেজিং আর দুর্ব্যবহারের মধ্যে বিস্তর ফারাক রয়েছে। এই ফারাক কখনওই মেনে নিতে চায় না অজিরা। 

Updated By: Jan 12, 2021, 01:40 PM IST
Ind vs Aus: 'আমিই বোকা', সবার সামনে অশ্বিনের কাছে ক্ষমা চাইলেন পেইন

নিজস্ব প্রতিবেদন- তাঁর অনলাইন প্রেস কনফারেন্স-এ আসার কথা ছিল না। কিন্তু তিনি এলেন। এসে জানালেন, তিনি ইচ্ছে করেই এসেছেন। আসার প্রয়োজন ছিল বলে মনে করেছিলেন। তাই এসেছেন। তবে এসেই যেটা বললেন তা শুনে প্রথমে বিশ্বাস করা কঠিন হয়ে দাঁড়িয়েছিল। কারণ, যে অজি অধিনায়ক অহংকারী ও উন্নাসিক বলে পরিচিত, সেই তিনিই যদি প্রকাশ্যে ক্ষমা চান, বিশ্বাস করা সহজ হয় নাকি! তবে যাই হোক, কেউ নিজের ভুল বুঝতে পেরে তা স্বীকার করলে আর কী-ই বা বলার থাকতে পারে! 
সিডনি টেস্টে রবিচন্দ্রন অশ্বিন (Ravichandran Ashwin) এর সঙ্গে অকারণে দুর্ব্যবহার করেছিলেন অজি অধিনায়ক Tim Paine. কিন্তু ম্যাচ শেষ হতেই তাঁর ঘোর কেটে যায়। ভুল বুঝতে পারেন। তাই প্রেস কনফারেন্স-এ এসে জানান, তিনি যা করেছেন তা বোকামি। তাই অশ্বিনের কাছে ক্ষমা চেয়েছেন।

স্লেজিং আর দুর্ব্যবহারের মধ্যে বিস্তর ফারাক রয়েছে। এই ফারাক কখনওই মেনে নিতে চায় না অজিরা। ভারতীয় দল সফরে গেলেই স্লেজিং মাত্রা ছাড়ায়। রূপ নেয় দুর্ব্যবহারের। Sydney Test- এও ঠিক সেটাই হয়েছিল। অশ্বিনকে কুরুচিকর ভাষায় আক্রমণ করেছিলেন পেইন। অশ্বিন স্টান্স ছেড়ে কয়েকবার তাঁর মুখের দিকে তাকিয়ে ছিলেন। পেইন তখনও যছেন দাঁত-নখ বের করতে চাইছিলেন। বারবার উইকেটের পিছন থেকে অশ্বিনকে খোঁচাতে থাকেন তিনি। অশ্বিন চুপ করে সহ্য করার পাত্র নন। তাই তিনিও পেইনের দুর্ব্যবহারের জবাব দিয়েছিলেন। আসলে হনুমা বিহারী ও অশ্বিনকে আউট করতে পারছিলেন না অজি বোলাররা। হতাশা বাড়ছিল তাঁদের। সেই হতাশার বহির্প্রকাশ করে ফেলেন পেইন। স্লেজিং-এর সুরে বলেন, অ্যাশ (অশ্বিন), গাব্বা টেস্টে তোমাকে পাওয়ার জন্য আর অপেক্ষা করতে পারছি না।।  সেইসঙ্গে মুখে বিকৃত আওয়াজও করেছিলেন। চলে গালিগালাজও। অশ্বিন তাঁকে পাল্টা বলেন, তোমাকে ভারতে পাওয়ার অপেক্ষা করছি। ওটাই হয়তো তোমার জীবনের শেষ সিরিজ হবে।

আরও পড়ুন-  Ind vs Aus: পেটের পেশিতে টান, Brisbane Test-এর আগে ছিটকে গেলেন বুমরা

টিম পেইন ভার্চুয়াল সাংবাদিক সম্মেলনে এসে বলেছেন, ''ম্যাচ শেষেই আমি ওর সঙ্গে গিয়ে কথা বলি। ওকে বলি, দিনের শেষে নিজেকেই বোকা বলে মনে হয়েছে। তুমি মুখ খোলার পরই ক্যাচ ফেলে দাও। এর পর আমরা নিজেরাও হাসাহাসি করি। সব ঠিক আছে এখন। আমি যেভাবে অস্ট্রেলিয়া দলের ক্যাপ্টেন্সি করি তাতে গর্বিত। তবে সিডনিতে আমার ক্যাপ্টেন্সি গর্ব করার মতো হয়নি। চাপে ছিলাম। সেই চাপ আমার উপর প্রভাব ফেলেছিল। তাই আমি তেমন ব্যবহার করে ফেলি। আমি ও আমার টিম নিজেদের মতো পারফর্ম করিনি। এটা মেনে নিতে চাই।''