IPL 2021: Chetan Sakariya র জীবনের গল্প চোখ ভিজিয়ে দেবে! তাঁকে স্যালুট করলেন Virender Sehwag

 চেতনের বাবা লরি চালাতেন। কিন্তু তিনবার দুর্ঘটনার পর এখন তিনি শয্য়াসায়ী। একটা সময় চেতন তাঁর মামার মুদির দোকানে কাজ করতেন সংসার চালানোর জন্য়।

Updated By: Apr 13, 2021, 08:26 PM IST
IPL 2021: Chetan Sakariya র জীবনের গল্প চোখ ভিজিয়ে দেবে! তাঁকে স্যালুট করলেন Virender Sehwag

নিজস্ব প্রতিবেদন: স্কোরবোর্ড বলছে চলতি আইপিএলের (IPL 2021) প্রথম ম্যাচে পঞ্জাব কিংস হারিয়েছে রাজস্থান রয়্যালসকে। অধিনায়ক সঞ্জু স্যামসনের (Sanju Samson) অসাধারণ অপরাজিত সেঞ্চুরিতেও (৬৩ বলে ১১৯) শেষ রক্ষা হয়নি রাজস্থানের। চার রানের জন্যই হারতে হয়েছে তাঁদের। তবে সঞ্জু নয়, তাঁর টিমের তরুণ বোলার চেতন সাকারিয়া এখন আলোচনায়। আইপিএল অভিষেকেই জাত চিনিয়েছেন সৌরাষ্ট্রের বাঁ-হাতি জোরে বোলার।

৪ ওভার বল করে ৩১ রান দিয়ে চেতন তুলে নেন ৩ উইকেট। তবে চেতনের জীবনের গল্পটা শুনলে অনেকেরই হয়তো চোখে জল চলে আসবে। আর সেই করুণ গল্প শোনালেন দেশের প্রাক্তন ওপেনার বীরেন্দ্র শেহওয়াগ (Virender Sehwag)। ট্যুইট করেই চেতনের মায়ের কথোপকথন তুলে ধরেন বীরু। সামনে আসে অজানা কাহিনী।

বীরু ট্যুইটারে লিখেছেন, "কয়েক মাস আগেই চেতন সাকারিয়ার ভাই আত্মহত্যা করে। অথচ বাবা-মা ১০ দিন তাকে সেই খবর দেয়নি। যেহেতু ও সৈয়দ মুস্তাক আলি ট্রফি খেলছিল। এই তরুণ ছেলেটা আর ওর পরিবারের কাছে ক্রিকেটের মানেটাই আলাদা। সত্যিই আইপিএল ভারতীয়দের কাছে স্বপ্ন। কারোর কাছে অসাধারণ দৃঢ়তার গল্প। চেতন অসাধারণ সম্ভাবনাময় একজন।"

আরও পড়ুন: IPL 2021: অল্পের জন্য জিতল পঞ্জাব! দুর্দান্ত লড়াই রাজস্থানের, সেঞ্চুরি করেও ট্র্যাজিক নায়ক Sanju Samson

এই কিছুদিন আগেও চেতন ও তাঁর পরিবারের ওপর দিয়ে ভয়ঙ্কর ঝড় বয়ে গিয়েছে। সৈয়দ মুস্তাক আলি ট্রফিতে দুরন্ত ফর্মে ছিলেন চেতন। আর তখনই তাঁর ভাই আত্মহননের পথ বেছে নিয়েছিলেন। কারণ যদিও অজ্ঞাত। চেতনের মা বুকে পাথর চাপা দিয়েই ছোট ভাইয়ের প্রয়াণের খবর জানাননি বড় ভাইকে। আকস্মিক এই খবর পেলে চেতনের টুর্নামেন্ট থেকে ফোকাস সরে যাবে। তা বুঝতে পেরেছিলেন চেতনের মা। তাই ১০ দিন খবর গোপন রেখেছিলেন। ছোট ভাইয়ের মৃত্যুর খবর পাওয়ার পর চেতন খাওয়া দাওয়া পর্যন্ত বন্ধ করে দেন।

চেতনের বাবা লরি চালাতেন। কিন্তু তিনবার দুর্ঘটনার পর এখন তিনি শয্য়াসায়ী। একটা সময় চেতন তাঁর মামার মুদির দোকানে কাজ করতেন সংসার চালানোর জন্য। পাঁচ বছর আগেও চেতনের ঘরে ছিল না কোনও টিভি। আইপিএলের ডাক চেতনের জীবনে আশীর্বাদ হয়ে নেমে আসে। এবার নিলামে রাজস্থান রয়্যালস তাঁকে ১ কোটি ২০ লাখ টাকায় নিয়েছে দলে। এবার চেতনের অন্ধকার জীবন পাবে আলোর দিশা।