করোনা কেড়ে নিল ১৩ বছরের ছেলের প্রাণ, ভাইরাসের গতিবিধি বুঝতে পারছেন না বিজ্ঞানীরা!

১৩ বছরের ছেলেটির বাবা—মা জানিয়েছেন, তাঁদের সন্তানের কোনও অসুখ বা সংক্রমণ ছিল না আগে। 

Updated By: Apr 1, 2020, 05:10 PM IST
করোনা কেড়ে নিল ১৩ বছরের ছেলের প্রাণ, ভাইরাসের গতিবিধি বুঝতে পারছেন না বিজ্ঞানীরা!

নিজস্ব প্রতিবেদন— এতদিন পর্যন্ত একদল বিজ্ঞানী বলছিলেন, করোনায় আক্রান্ত হয়ে প্রাণ হারানোর সম্ভাবনা বেসি বয়স্কদের। অর্থাত্, ৬০ বছরের বেশি যাদের বয়স, তাঁদের এই মারণ ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াইটা কঠিন। কিন্তু এবার ইংল্যান্ডে একটি ১৩ বছরের ছেলে মারা গেল করোনায় আক্রান্ত হয়ে। অর্থাত্, এতদিন বেশ কিছু গবেষক বলেছিলেন, বাচ্চা বা কমবয়সীদের উপর করোনার প্রকোপ তেমন মারাত্মক হবে না। ১৩ বছরের ছেলেটির মৃত্যু এবার সেইসব গবেষকদের গবেষণা নিয়ে প্রশ্ন তুলে দিয়ে গেল। এমনকী, করোনার গতিবিধি নিয়েও সংশয় দেখা দিয়েছে। প্রশ্ন উঠছে, তা হলে করোনাভাইরাসের গতিবিধি ঠাওর করতে পারছেন না বিজ্ঞানীরা!

১৩ বছরের ছেলেটির বাবা—মা জানিয়েছেন, তাঁদের সন্তানের কোনও অসুখ বা সংক্রমণ ছিল না আগে। কিছুদিন আগে আমেরিকাতে এক সদ্যোজাতের মৃত্যু হয়েছিল করোনার আক্রান্ত হয়ে। তারও আগে ইংল্যান্ডে ২১ বছর বয়সী একটি মেয়েরও মৃত্যু হয়েছিল করোনায়। এমনকী বেলজিয়ামেও ১২ বছর বয়সী একটি মেয়ের করোনার আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর খবর পাওয়া গিয়েছিল। তা হলে কি কমবয়সীদের উপরও মারাত্মক প্রভাব ফেলছে এই মারণ ভাইরাস! তবে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর হার বেশি বয়স্কদের মধ্যেই। জানাচ্ছেন চিকিত্সকরা।

আরে পড়ুন— করোনার বিরুদ্ধে লড়তে নতুন ওষুধের ট্রায়াল শুরু করল জাপান

বিজ্ঞানীরা এর আগে বলেছিলেন, করোনায় আক্রান্ত হয়ে বাচ্চা বা কমবয়সীদের প্রাণহানির সম্ভাবনা মাত্র দুই শতাংশ। তবে গত কয়েকদিনে কয়েকজন কমবয়সীর মৃত্যু এবার বিজ্ঞানীদের নতুন করে ভাবিয়ে তুলেছে। ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপসহ একাধিক সমস্যা যাদের শরীরে রয়েছে তাদের করোনায় আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা বেশি বলে জানিয়েছিলেন গবেষকরা। কিন্তু এখন দেখা যাচ্ছে, আট থেকে আশি, অনেকের শরীরেই এই ভাইরাস বাসা বাঁধছে। উল্লেখ্য, ইতিমধ্যে সারা বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গিয়েছেন ৪২, ৩৫৪ জন।