'রক্ত রহস্য'-তে কোয়েলের সঙ্গে কাজ করার অভিজ্ঞতা জানালেন সৌকর্য ঘোষাল

রণিতা গোস্বামী

Updated By: Jan 7, 2019, 12:51 PM IST
'রক্ত রহস্য'-তে কোয়েলের সঙ্গে কাজ করার অভিজ্ঞতা জানালেন সৌকর্য ঘোষাল

রণিতা গোস্বামী

ছোটদের ছবি হলেও 'রেনবো জেলি'র সাতরং ছোট থেকে বড় সকলের মনকেই রঙিন করে তুলেছিল। দর্শকদের মনে দাগ কেটেছিল ছোট্ট ঘোঁতন। তবে এবার পরিচালক সৌকর্য ঘোষাল যে ছবিটা বানাচ্ছেন সেটা নারী কেন্দ্রীক। তবে এই ছবির মূল বিষয়বস্তু আবেগ ও মন। তাই নতুন ছবি 'রক্ত রহস্য'-কে পরিচালক সৌকর্য ঘোষাল ইমোশনাল থ্রিলার বলারই পক্ষপাতী। এই  ইমোশনাল থ্রিলারটি ঠিক কেমন, এর বিষয়বস্তুই বা কী, সেটা Zee ২৪ ঘণ্টাকে নিজেই খোলসা করে জানালেন পরিচালক।  

সৌকর্য ঘোষাল কথায়,

''ছবির গল্প এগোবে পেশায় আর জে স্বর্ণজাকে কেন্দ্র করে। ও রেডিওতে একটা ভীষণ জনপ্রিয় শো চালায়। তবে স্বর্ণজা একজন ভীষণই আবেগপ্রবণ মহিলা। চরিত্রটি শুধুমাত্র মনের দিক থেকে larger than life-বললেও ভুল হবে না। এই চরিত্রটার মনটা ভীষণ বড়। মানুষের ছোট ছোট বিষয় স্বর্ণজার মন ছুঁয়ে যায়। অনেক প্রান্তিক মানুষের ছোট্ট ছোট্ট দুঃখতেও তার খারাপ লাগে। এধরনের একটা চরিত্র। আর এই আবেগের কারণেই স্বর্ণজা বিভিন্ন মানুষের সঙ্গে জড়িয়ে পড়ে। স্বর্ণজা সকলকেই সাহায্য করে, বড়লোক, গরিব লোক দেখে সাহায্য করে না। তবে জীবন বড়ই অদ্ভুত। জীবন আবার এই আবেগপ্রবণ মানুষগুলিকেই অনেক সময় ঠকায়। তাই  স্বর্ণজাও বিভিন্ন ঝামেলায় জড়িয়ে পড়তে দেখা যাবে। তখন সে স্বর্ণজা সকলের পাশে থাকত, সেই মানুষটিই কোনওভাবে কারোর সাহায্যে পায় না। যদিও তাতে তার কিছুই এসে যায় না। কারণ, সে তার ভালোলাগা থেকেই সকলকে সাহায্য করেছে। এই ভাবেই গল্পটা এগোবে। তবে স্বর্ণজা শুধুই আবেগপ্রবণ নয়, তাঁর চরিত্রের আরও একটি বৈশিষ্ট হল ও ভীষণ জেদি। যে কারণে সে বাড়ির লোকজনের কাছেও খুব জ্বালাতনের বিষয় হয়ে ওঠে। ''

আরও পড়ুন-ফিল্ম রিভিউ: রসগোল্লার রসে মিষ্টিমুখ সিনেমাপ্রেমী বাঙালির

 ছবি- শ্যুটিংয়ের সময় কোয়েল মল্লিকের সঙ্গে পরিচালক সৌকর্য ঘোষাল

পরিচালক সৌকর্য ঘোষাল জানান, স্বর্ণজা চরিত্রটির জন্য কোয়েলই (কোয়েল মল্লিক) তাঁর প্রথম পছন্দ ছিল। তাঁর কথায়, ''বাংলায় অনেকেই রয়েছেন। তবে বিভিন্ন অভিনেত্রী বিভিন্ন চরিত্রের সঙ্গে মানানসই। তেমনই স্বর্ণজা চরিত্রটির জন্য কোয়েলই আমার কাছে প্রথম পছন্দ ছিল। কোয়েলের 'গুড গার্ল' লুকটা এই চরিত্রটার জন্য যায়। ও যদি কোনও ভাবে ছবিটি করতে রাজি না হতো, তখন আমি অন্য জনের কথা ভাবতাম, নচেৎ নয়। তবে গল্পটা শুনে কোয়েল রাজি হয়ে গিয়েছিল। ওর খুব পছন্দও হয়েছিল। তবে কোয়েলের সঙ্গে আমার আগে আলাপ ছিল না, ও আমার স্ত্রীকে (পূজা চট্টোপাধ্যায়, পেশায় কস্টিউম ডিজাইনার) চিনত। তাই কোয়েল ওকেই প্রথম ফোন করে জানায় ও এটা করবে। তারপরই কাজ শুরু হয়। ''

ছবি- শ্যুটিংয়ের সময় কোয়েল মল্লিক

তারকা অভিনেত্রীর সঙ্গে কাজ করার অভিজ্ঞতা কেমন সে প্রসঙ্গে পরিচালক বলেন, '' এই ছবির প্রত্যেকটি দৃশ্যে স্বর্ণজা রয়েছে। অর্থাৎ যেখানেই শ্যুটিং হচ্ছে কোয়েলকে থাকতে হচ্ছে। সে চায়ের দোকানে শ্যুট হোক, কিংবা বাড়ির কাজের লোকের সঙ্গে কিংবা রিক্সাওয়ালার সঙ্গে, সবক্ষেত্রেই। টানা ২১ দিনের শ্যুটিংয়ে কোনও ছুটি ছিল না ওর। কোনও ব্রেক ছিল না। যেখানে অন্যান্যদের মাঝে ব্রেক ছিল। অনেকক্ষেত্রেই দেখা যায়, বড় তারকারা অনেকেই এভাবে কাজ করতে গিয়ে অনেকসময় ভীষণ বিরক্ত হন। সেটা যখন আমাদের কানে আসে, তখন খুব খারাপ লাগে, এই সব ঘটেই থাকে। কোয়েলের সঙ্গে যখন কাজ করতে যাই, সবাই আমায় ভয় দেখিয়েছিল, স্টারকে নিয়ে কাজ করছো অনেক সমস্যা হবে দেখো। তবে কোয়েলের ক্ষেত্রে এক্কেবারেই তেমনটা হয়নি। ও ভীষণ পেশাদার। ওর সঙ্গে কাজ করে অন্য অভিজ্ঞতা হলো। সবক্ষেত্রে, সবার সঙ্গে ওর ব্যবহার ভীষণ ভালো, যেটা শ্যুটিংয়ের সময় খুব সাহায্য করেছে, কাজ চলাকালীন এটাই একটা সুন্দর কাজের আবহ তৈরি করেছিল। ''

এই ছবিতে কোয়েল মল্লিক ছাড়াও দেখা যাবে  লিলি চক্রবর্তী, চন্দন রায় সান্যাল, শান্তিলাল মুখোপাধ্যায়, বাসবদত্তা চট্টোপাধ্যায়, জয়রাজ ভট্টাচার্য, কাঞ্চনা মৈত্র, সুদীপা বসু, উজ্জ্বল মালাকার, ঋতব্রত মুখোপাধ্যায়ের মত অভিনেতা অভিনেত্রীদের। ইতিমধ্যেই ছবির শ্যুটিংয়ের কাজ শেষ। ছবির ডাবিংয়ের কাজ ফেব্রুয়ারি মাসে শুরু হবে বলে জানালেন পরিচালক।  'রক্ত রহস্য'-র প্রযোজনা কোয়েল মল্লিকের স্বামী নিসপাল সিং রানের প্রযোজনা সংস্থা সুরিন্দর ফিল্মস করছে বলে জানান পরিচালক।

আরও পড়ুন-মহালয়ার স্তোত্র পাঠে উত্তমকুমার-বীরেন্দ্রকৃষ্ণের লড়াই এবার সেলুলয়েডে, ঠিক কী ঘটেছিল?