সারেগামাপা-য় প্রথম হয়েও মনে আনন্দ নেই, ট্রোলের জবাব দিলেন Arkadeep

সারেগামাপা-র শীর্ষে থেকেও মনে আনন্দ নেই। নেটিজেনদের ট্রোলের মুখে সারেগামাপা(SAREGAMAPA)জয়ী। লাইভ এ এসে জবাব দিলেন শিল্পী, পাশে পেলেন বিশিষ্টদের।

Edited By: অনুসূয়া বন্দ্যোপাধ্যায় | Updated By: Apr 19, 2021, 08:09 PM IST
সারেগামাপা-য় প্রথম হয়েও মনে আনন্দ নেই, ট্রোলের জবাব দিলেন Arkadeep

নিজস্ব প্রতিবেদন: রবিবারই সব প্রতীক্ষার অবসান হয়েছে। বাংলা গানের সেলিব্রেশনে মেতে উঠেছিল সারেগামাপা-র মঞ্চ। লড়াইটা ছিল হাড্ডাহাড্ডি। ফাইনালে একদিকে যেমন ইমনের টিম থেকে অর্কদীপ মিশ্র (Arkadeep Mishra) ও জ্যোতি, অন্যদিকে রাঘব চট্টোপাধ্যায়ের (Raghab Chatterjee) টিম থেকে পাল্টা জায়গা করে নিয়েছিলেন নীহারিকা ও অনুষ্কা। মনোময় ভট্টাচার্যের (Manomay Bhattacharya) টিম থেকে ছিলেন রক্তিম ও বিদীপ্তা। এদিন শেষ হাসি হেসে সেরার শিরোপা জিতে নিলেন ইমন চক্রবর্তীর (Iman Chakraborty) টিমের অর্কদীপ মিশ্র।

আরও পড়ুন:'বাইরে থেকে নেতারা এসে মিটিং-মিছিল করছেন', 'রাজনীতিবিদ' খোঁচা Dev-র

দ্বিতীয় স্থানে রইলেন রাঘব চট্টোপাধ্যায়ের টিমের নীহারিকা। মনোময় ভট্টাচার্যের টিমের বিদীপ্তা রইলেন তৃতীয় স্থানে। অনুষ্কা জিতে নেন 'কালিকা প্রসাদ ভট্টাচার্য স্মৃতি পুরস্কার' এবং ফেসবুক দর্শকদের বিচারে  'ভিউয়ারস চয়েস অ্যাওয়ার্ড'। মনোময় ভট্টাচার্যের টিম পেল 'টিম অফ দিজ সিজন অ্যাওয়ার্ড'। বিশেষ অতিথি ছিলেন শঙ্কর মহাদেবন (Shankar Mahadevan), কেকে (KK), শান (Shaan) । অর্কদীপ জিতলেন পাঁচ লক্ষ টাকা। তবুও আনন্দ নেই তাঁর মনে, কেন জানেন, সোশ্যাল মিডিয়ায় উপচে পড়ছে মিশ্র প্রতিক্রিয়া। নিজে থেকেই সোমবার লাইভে এসে অর্কদীপ বলেন - তিনি ভাল, মন্দ সব প্রতিক্রিয়াই মাথা পেতে নিয়েছেন। তিনিও মানেন সব প্রতিযোগীর যোগ্যতা ছিল, তিনি নিজেও শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত বিশ্বাস করতে পারেন নি যে তিনিই শীর্ষস্থানে, সকলকে পাশে থাকার আবেদন করেন শিল্পী।

আরও পড়ুন:'তোর সঙ্গে আমার একটা অংশ নিয়ে চলে গেলি চিকু, Mommy loves you' Mimi

একদল বলছেন একদম সঠিক সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বিচারকরা। অন্যদল ক্ষোভ উগরে দিচ্ছেন জয় সরকার (Joy Sarkar), শ্রীকান্ত আচার্য (Srikanto Acharya), আকৃতি কক্কর (Akriti Kakar), ও মিকা সিংয়ের (Mika Singh) উপর। বিচারকদের উপর। ফলে মানসিকভাবে বিপর্যস্ত অর্কদীপ। প্রতিবছর এহেন পরিস্থিতি তৈরি হয়, বিচারকদের বিচার নিয়েও প্রশ্ন তোলা হয়, তবে এবার তা মাত্রা ছাড়িয়েছেষ বাদ যাচ্ছেন না প্রথম সারির সঙ্গীতশিল্পীরাও। ব্যক্তিগত আক্রমণ করা হচ্ছে। এপ্রসঙ্গে নিজেদের মত রেখেছেন বিশিষ্ট শিল্পীরা, শীর্ষে থাকা শিল্পীকে তাঁর জয় উপভোগ করতে দিন আর্জি লোপামুদ্রা মিত্রের (Lopamudra Mitra)। প্রতি বছর একজন প্রতিযোগি শীর্ষস্থানে থাকেন, তার মানে এই নয় যে বাকিরা সুগায়ক নন, একবছর আকর্ষণের কেন্দ্রে থাকার নিজেদের যোগ্যতায় লড়তে হয় আজীবন। তাই সকলকে আবদেন করেন সদ্য আলোর দিকের এগিয়ে যাচ্ছেন যিনি তাঁকে অন্ধকারের  দিকে যাতে ঠেলে না দেওয়া হয়। ডানা মেলে উড়তে দেওয়া হোক শিল্পীকে, মত লোপামুদ্রার।