১৮ ঘণ্টা পার, এখনও উদ্ধার হল না কুয়োয় আটকে পড়া বাঁশদ্রোণী যুবকের

কুয়োয় ডুবুরি নামে সন্ধে সাড়ে পাঁচটায়। দমকলকর্মীরা ওই যুবককে উদ্ধারের চেষ্টা করছেন। দমকলের তিনটি ইঞ্জিন কাজ শুরু করে। দমকল কর্মীরা পাম্প চালিয়ে জল বের করা শুরু করেন কুয়ো থেকে

Reported By: সুকান্ত মুখোপাধ্যায় | Updated By: Dec 28, 2019, 07:18 AM IST
১৮ ঘণ্টা পার, এখনও  উদ্ধার হল না কুয়োয় আটকে পড়া বাঁশদ্রোণী যুবকের
নিজস্ব চিত্র

নিজস্ব প্রতিবেদন: দুপুর থেকে চেষ্টা করেও কুয়ো থেকে  উদ্ধার করা গেল না যুবককে। দুপুরে স্নান করতে গিয়ে উধাও হয়ে যান  বাঁশদ্রোণীর সোনালি পার্কের বাসিন্দা বছর তিরিশে বাপি সরকার।পরে বোঝা যায় যুবক কুয়োয় পড়ে গেছে। শুরু হয় উদ্ধারকাজ।

কুয়োয় ডুবুরি নামে সন্ধে সাড়ে পাঁচটায়। দমকলকর্মীরা ওই যুবককে উদ্ধারের চেষ্টা করছেন। দমকলের তিনটি ইঞ্জিন কাজ শুরু করে। দমকল কর্মীরা পাম্প চালিয়ে জল বের করা শুরু করেন কুয়ো থেকে। নামানো হয়  ডুবুরিও। প্রায় পঞ্চাশ ফুট গভীর পাতকুয়ো থেকে  উদ্ধারকাজে হাত লাগায় বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীও। সন্ধে সাতটা নাগাদ   কুয়োর মধ্যেই যুবকের হদিশ মেলে। শুরু হয় ডুবুরি নামিয়ে যুবককে উদ্ধারের চেষ্টা। কিন্তু সেখানেও সমস্যা। যুবককে কুয়ো থেকে তুলতে গিয়ে ফের বিপত্তি। দেহ থেকে দড়ি খুলে যায়। ফের কুয়োয় পড়ে যান যুবক।

আরও পড়ুন- মোদীকে বার্তা দিতেই রবীন্দ্রনাথকে 'হাতিয়ার' মোহন ভাগবতের!

রাত দশটা পর্যন্ত উদ্ধারকাজ চালানোর পর দমকল জানিয়ে দেয় কাল সকাল থেকে ফের উদ্ধারকাজ শুরু হবে। যদিও দমকলের এই সিদ্ধান্ত মানতে রাজি হয়নি পরিবার। রাতেই যুবককে কুয়ো থেকে তোলার দাবি সরব হন যুবকের পরিবার। কাউন্সিলরের সামনেই বিক্ষোভে ফেটে পড়েন ওই যুবকের পরিবার।