'আপনাকে পরিষেবা দিতে পেরে আনন্দিত', 'স্বাস্থ্যসাথী' নিয়ে রাজ্যবাসীকে চিঠি Mamata-র

সাধারণের সঙ্গে লাইন দিয়ে স্বাস্থ্যসাথীর কার্ড নিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী নিজেও।

Reported By: সুতপা সেন | Updated By: Jan 7, 2021, 04:40 PM IST
'আপনাকে পরিষেবা দিতে পেরে আনন্দিত', 'স্বাস্থ্যসাথী' নিয়ে রাজ্যবাসীকে চিঠি Mamata-র

নিজস্ব প্রতিবেদন: ভোটের মুখে 'স্বাস্থ্যসাথী' প্রকল্প নিয়ে এবার রাজ্যবাসীকে খোলা চিঠি দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ( Mamata Banerjee)। চিঠিতে তিনি লিখেছেন, 'স্বাস্থ্যসাথী প্রকল্পে আপনাকে একজন উপভোক্তা হিসেবে অন্তর্ভুক্ত হিসেবে করতে পেরে ও প্রকল্পের অধীন পরিষেবা আপনাকে দিতে পেরে আমরা অত্যন্ত আনন্দিত। আশা করি,  আগামীদিনেও এই প্রকল্পের যাবতীয় সুযোগ-সুবিধা প্রদান করে আপনার দৈনন্দিন জীবনযাত্রার সামগ্রিক মানোন্নয়নে আরও বেশি করে সামিল হওয়ার সুযোগ পাব।'

উল্লেখ্য, রাজ্য সরকারের 'স্বাস্থ্যসাথী'  প্রকল্পকে ঘিরে সাধারণ মানুষের উৎসাহ তুঙ্গে। এই প্রকল্পে  ১০ কোটি মানুষকে কার্ড বিলি করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। বাদ যাননি খোদ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও (Mamata Banerjee)। কলকাতা পুরসভার হরিশ চ্যাটার্জি রোডের ওয়ার্ড অফিস জয়হিন্দ ভবনে চলছে দুয়ারে সরকার ক্য়াম্প। মঙ্গলবার সেখানে গিয়ে সাধারণ মানুষের সঙ্গে লাইন দিয়ে স্বাস্থ্যসাথী কার্ড নেন মুখ্যমন্ত্রী। উপস্থিত ছিলেন মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়, পুর প্রশাসক ফিরহাদ হাকিম-সহ অন্যন্য সরকারি আধিকারিকরা।

আরও পড়ুন: হাতে হাতে স্বাস্থ্য সাথী কার্ড, ICCU-তে গিয়ে দিয়ে এলেন স্বাস্থ্য দফতরের আধিকারিকরা

উল্লেখ্য, মুখ্যমন্ত্রীর দায়িত্ব সামলালেও বেতন নেন না মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়। ২০১১ সালের আগে পর্যন্ত দক্ষিণ কলকাতার কেন্দ্রের সাংসদ ছিলেন তিনি। কিন্তু নেন না সাংসদের পেনশনও। তবে নিজের নামে স্বাস্থ্যসাথীর কার্ড করিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি জানিয়েছেন, ব্যক্তিগত স্বাস্থ্যবিমা থাকলেও, ১০ কোটি মানুষের 'সাথী' হওয়ার লক্ষ্যে স্বাস্থ্যসাথীর কার্ড করিয়েছেন।