অর্ধশতক পর ২১' নতুন মুখে ঘুরে দাঁড়াতে মরিয়া সিপিআইএম

৮৫ জনের রাজ্য কমিটি। ৮২ জন নির্বাচিত হয়েছেন সিপিআইএম ২৪ তম  রাজ্য সন্মেলনে। ৩ জনের স্থান ফাকা রাখা হয়েছে। ছাত্র-যুব-মহিলাদের প্রাধান্য দেওয়া হল নবগঠিত রাজ্য কমিটিতে।   ২১ জন নতুন মুখ। ১০ জন মহিলা প্রতিনিধিকে রাখা হয়েছে এই কমিটিতে। রাজ্যের বিভিন্ন জেলা থেকেই প্রতিনিধিদের প্রাধান্য দিয়ে তৈরি হল এই কমিটি। রাজ্য সম্পাদকের পদ থেকে অব্যাহতি নিয়েছেন বর্ষীয়ান বামনেতা বিমান বসু। দলের ব্যাটন ধরলেন রাজ্যের বিরোধী দলনেতা সূর্য মিশ্র।

Sourav Paul Sourav Paul | Updated: Mar 13, 2015, 10:34 PM IST
অর্ধশতক পর ২১' নতুন মুখে ঘুরে দাঁড়াতে মরিয়া সিপিআইএম

কলকাতা: ৮৫ জনের রাজ্য কমিটি। ৮২ জন নির্বাচিত হয়েছেন সিপিআইএম ২৪ তম  রাজ্য সন্মেলনে। ৩ জনের স্থান ফাকা রাখা হয়েছে। ছাত্র-যুব-মহিলাদের প্রাধান্য দেওয়া হল নবগঠিত রাজ্য কমিটিতে।   ২১ জন নতুন মুখ। ১০ জন মহিলা প্রতিনিধিকে রাখা হয়েছে এই কমিটিতে। রাজ্যের বিভিন্ন জেলা থেকেই প্রতিনিধিদের প্রাধান্য দিয়ে তৈরি হল এই কমিটি। রাজ্য সম্পাদকের পদ থেকে অব্যাহতি নিয়েছেন বর্ষীয়ান বামনেতা বিমান বসু। দলের ব্যাটন ধরলেন রাজ্যের বিরোধী দলনেতা সূর্য মিশ্র।

১৯৬৪ সালে প্রতিষ্ঠা হয়েছিল ভারতের কমিউনিস্ট পার্টি(মার্ক্সবাদী)। তার আগে ছিল অবিভক্ত কমিউনিস্ট পার্টি। পার্টি ভাগের পর দলের দায়িত্ব নিয়েছিলেন জ্যোতি বসু। ১৯৫১ থেকে ১৯৬০   পর্যন্ত একাধারে রাজ্যের বিরোধী দলনেতা ও দলের রাজ্য সম্পাদকের (অবিভক্ত কমিউনিস্ট পার্টি) দায়িত্ব পালন করেছিলেন তিনি। এরপর রাজ্য সম্পাদকের ভূমিকায় আসেন প্রমোদ দাসগুপ্ত। এরপর সরোজ মুখার্জি, শৈলেন দাসগুপ্তরা দুর্দিনে দলের রাজ্য সম্পাদকের দায়িত্বে ছিলেন। এরপর সুদিনে রাজ্য সম্পাদকের ভূমিকায় আসেন অনিল বিশ্বাস। তাঁর মৃত্যুর পর বামফ্রন্ট চেয়ারম্যান বিমান বসু দলের ব্যাটন ধরেন।  

২০১১ সালে রাজ্যের সরকার থেকে ক্ষমতাচ্যুত হয় বামেরা। সংগঠন ক্রমশ ভেঙে পরে। ভোটে ধারাবাহিক রক্তক্ষরণ ও দলের সঠিক গাইড লাইনের জন্য নতুন মুখের দাবি তোলেন কর্মি সমর্থকরা।  সিপিআইএম ২৪ তম  রাজ্য সন্মেলনে নতুন মুখ হিসেবে উঠে এলেন এক ঝাঁক তরুণ মুখ। পুরাতনের মধ্যে অনেককেই এবার আমন্ত্রিত। সেই তালিকায় রয়েছেন রাজ্যের প্রক্তন মন্ত্রী ও পার্টি পলিটবুরো নিরুপম সেন, ৫ বারের সাংসদ তরিৎ তোপদার, বিধানসভার প্রাক্তন স্পীকার হাসিম আব্দুল হালিম সহ শ্রমিক নেতা মোহম্মদ আমিন,প্রাক্তন কলকাতা জেলা সম্পাদক রঘুনাথ কুশারি।

নব নির্বাচিত কমিটিতে নতুন কারা?

রুপা বাগচি(কলকাতা)
পলাশ দাস (উত্তর ২৪ পরগণা)
মৃণাল চক্রবর্তী(উত্তর ২৪ পরগণা)
সোমনাথ ভট্টাচার্য(উত্তর ২৪ পরগণা)
রবিন রায়(দার্জিলিং)
সমন পাঠক(দার্জিলিং)
জিয়াউল আলম(জলপাইগুড়ি)
মিতালী কুমার(হুগলী)
দেবলিনা হেমব্রম(বাঁকুড়া)
তাপস সিনহা(পূর্ব মেদিনীপুর)
নারায়ণ বিশ্বাস(দঃ দিনাজপুর)
অপূর্ব পাল(উঃ দিনাজপুর)
অজিত পতি (বাঁকুড়া)
এছাড়াও মিনতি ঘোষ, অঞ্জু কর, রতন দত্ত, দেবব্রত ঘোষ প্রমুখ।