ভোটের স্বচিত্র পরিচয় পত্র দেখালে ছাড় মিলবে মোবাইল ও গয়নার দোকানে

ভোটের স্বচিত্র পরিচয় পত্র দেখালেই বিশেষ ছাড়। ছাড় মিলবে মোবাইলের দোকান থেকে গয়নার দোকানে। ভোটারদের বুথমুখী করতে নয়া উদ্যোগ নির্বাচন কমিশনের। জামাকাপড়,মুদিখানার দোকানের পর এবার ডিসকাউন্টের আওতায় এল গয়না ও মোবাইলের দোকানও। ভোট দেওয়ার পর হাতের কালি দেখালেও মিলবে ছাড়।বর্ধমানের কাটোয়ায় বেশকিছু দোকানে এপিক কার্ড দেখিয়ে শুরু হয়ে গেছে চৈত্রের কেনাকাটা। দেওয়াল লিখন করে ও ভোট সচেতনতা বাড়াতে উদ্যোগী হয়েছে জেলা প্রশাসন। মে মাসের প্রথম সপ্তাহ পর্যন্ত পাওয়া যাবে এই বিশেষ ছাড়।

Updated By: Mar 29, 2014, 09:48 AM IST

ভোটের স্বচিত্র পরিচয় পত্র দেখালেই বিশেষ ছাড়। ছাড় মিলবে মোবাইলের দোকান থেকে গয়নার দোকানে। ভোটারদের বুথমুখী করতে নয়া উদ্যোগ নির্বাচন কমিশনের। জামাকাপড়,মুদিখানার দোকানের পর এবার ডিসকাউন্টের আওতায় এল গয়না ও মোবাইলের দোকানও। ভোট দেওয়ার পর হাতের কালি দেখালেও মিলবে ছাড়।বর্ধমানের কাটোয়ায় বেশকিছু দোকানে এপিক কার্ড দেখিয়ে শুরু হয়ে গেছে চৈত্রের কেনাকাটা। দেওয়াল লিখন করে ও ভোট সচেতনতা বাড়াতে উদ্যোগী হয়েছে জেলা প্রশাসন। মে মাসের প্রথম সপ্তাহ পর্যন্ত পাওয়া যাবে এই বিশেষ ছাড়।

কর্পোরেট ধাঁচের ভাবনা ভোটপর্বকে ঘিরে। ভাবনা শুধু নয়, একেবারে হাত কলমে উদ্যোগ। আসানসোলের নতুন ভোটারদের বুথমুখী করতে উদ্যোগী জেলা প্রশাসন। কেনাকাটা করলে চৈত্র সেলের ছাড়। নতুন ভোটাররা সচিত্র পরিচয়পত্র দেখালে কেনাকাটার ওপরে পাবেন অতিরিক্ত দু শতাংশ ছাড়। জামা কাপড়,মুদিখানা দোকানের পর এবার ডিসকাউন্ট মিলবে মোবাইল, সোনার দোকানেও। ছাড় মিলবে পাঁচ থেকে পঁচিশ শতাংশ পর্যন্ত। স্বাভাবিকভাবেই খুশি নতুন ভোটাররা।

ভোটদানে উতসাহিত করতে আরও এক নয়া উদ্যোগ নিয়েছে বর্ধমান জেলাপ্রশাসন। ভোট সচেতনতা বাড়ছে প্রশানিক উদ্যোগেই শুরু হয়েছে দেওয়াল লিখন। ভোট দেওয়ার কারিগুরি থেকে ভোটিং মেশিনে না ভোটের বোতাম ব্যবহার সবকিছুই থাকছে দেওয়াল লিখনে। প্রশাসনের অভিনব প্রচারে খুশি ভোটারও।