Covid 19: উদ্বেগ বাড়িয়ে ২৪ ঘণ্টায় কলকাতায় করোনা আক্রান্ত ৪৪৯, নবান্নে জরুরি বৈঠক

উৎসবের মরসুমে ক্রমশ বাড়ছে উদ্বেগ। 

Updated By: Oct 23, 2021, 05:06 PM IST
Covid 19: উদ্বেগ বাড়িয়ে ২৪ ঘণ্টায় কলকাতায় করোনা আক্রান্ত ৪৪৯, নবান্নে জরুরি বৈঠক

নিজস্ব প্রতিবেদন: উৎসবের মরসুমে ক্রমাগত বাড়ছে শহরের কোভিড (Covid 19) গ্রাফ। শুক্রবারের পর শনিবারও কলকাতায় বাড়ল করোনা (Corona) সংক্রমণ। এক লাফে একশোরও বেশি বাড়ল আক্রান্তের সংখ্যা। কলকাতা-সহ রাজ্যের করোনা পরিস্থিতি নিয়ে নবান্নে জরুরি বৈঠক। মুখ্যসচিবের নেতৃত্বে বৈঠক।  

শুক্রবার কলকাতায় করোনা (Corona) আক্রান্তের সংখ্যা ছিল ৩১৯ জন। শনিবার সেই সংখ্য়া বেড়ে হল ৪৪৯ জন। আক্রান্তদের মধ্য়ে ৩১৮ জন কলকাতা পুরসভার (KMC) স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ধরা পড়েছেন। বাকি ১৩১ জন বেসরকারি স্বাস্থ্যকেন্দ্র বা হাসপাতালে ধরা পড়েছেন। জানা গিয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা (Covid 19) আক্রান্তদের মধ্য়ে ১৯৪ জন দ্বিতীয় ডোজ নিয়েছেন। প্রথম ডোজ নেওয়ার পর করোনা (Covid 19) আক্রান্ত হয়েছেন ২২ জন। তবে আক্রান্তদের মধ্য়ে ৫৫ জন এখনও কোনও টিকা নেননি। আক্রান্ত হওয়ার পরেও হাসপাতালে ভর্তি হননি ৩৫ জন।

কলকাতা-সহ রাজ্যের করোনা (Corona) পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বিগ্ন নবান্ন। শনিবার তড়িঘড়ি জরুরি বৈঠকের ডাক দিলেন মুখ্যসচিব হরিকৃষ্ণ দ্বিবেদী। বৈঠকে সমস্ত জেলাশাসক, পুলিস সুপার এবং স্বাস্থ্য আধিকারিকদের থাকার নির্দেশ।  

আরও পড়ুন: RG Kar: কাজে ফিরতে চেয়ে কর্তৃপক্ষকে চিঠি ইন্টার্নদের, হাইকোর্টে জনস্বার্থ মামলা

আরও পড়ুন: Gariahat Murder : রাতারাতি বড়লোক হওয়ার স্বপ্নেই অপরাধে হাতেখড়ি উচ্চাকাঙ্ক্ষী ভিকির?

শুক্রবার কলকাতায় সর্বমোট ৩১৯ জন করোনা আক্রান্ত (Covid 19 Positive) হন। এদের মধ্যে ১৫০ জন করোনা টিকার (Corona Vaccine) দ্বিতীয় ডোজ নেওয়ার পর আক্রান্ত হন। প্রথম ডোজ নিয়ে আক্রান্ত হন ১৫ জন এবং কোনও টিকা (Corona Vaccine) না নিয়ে করোনা আক্রান্ত (Covid 19 Positive) হন ৫০ জন। উৎসবের মরশুমে কোভিডের এই ঊর্ধ্বমুখী গ্রাফ চিন্তা বাড়িয়েছে কলকাতা পুরসভার (KMC)। আগামী সোমবার থেকে শহরে খুলতে চলেছে একটি কোয়ারেন্টাইন সেন্টার এবং ২টি সেফ হোম। যার মধ্যে একটি মা ও শিশুদের জন্য। 

উদ্বেগের বিষয় হল, প্রয়োজন ছাড়া অনেকেই করোনা পরীক্ষা করাচ্ছেন না। বিদেশে ঘুরতে যেতে হলে কিংবা ভিনরাজ্যে যেতে হলে বা অন্য কোনও প্রয়োজন ছাড়়া অনেকে টেস্ট করাচ্ছেন না। জ্বর হলেও চিকিৎসকদের পরামর্শ না নিয়ে, ঘরোয়া টোটকায় সমাধান করতে চাইছেন। বাজার-দোকান এবং ভিড় এলাকাতেও অনেকেই মাস্ক পড়ছেন না। 

এই বিষয়ে শুক্রবার বৈঠকে বসে কলকাতা পুরসভা (KMC)। স্বাস্থ্য বিভাগের পাশাপাশি বৈঠকে সলিড ওয়েস্ট ম্যানেজমেন্ট বিভাগকেও ডাকা হয়। সেখানে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়, যে এলাকায় করোনা দ্রুত ছড়াচ্ছে, সেই এলাকা চিহ্নিত করে ব্যবস্থা নিতে হবে।  স্যানিটাইজেশনের কাজ সঠিক ভাবে চালনা করারও নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। 

(Zee 24 Ghanta App দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির লেটেস্ট খবর পড়তে ডাউনলোড করুন Zee 24 Ghanta App)