বাদশাহকে খুঁজে দিতে পারলে পঞ্চাশ হাজারের পুরস্কার

বাদশাহ মিসিং। এক-দু দিন নয়, নয় নয় করে দু সপ্তাহ হতে চলল। কোথায় গেল, কার সঙ্গে, কী বৃত্তান্ত? কেউ জানে না। যে খোঁজ দেবে, তার অবশ্য পোয়াবারো। খুঁজে দিলেই হাতে চলে আসবে কড়কড়ে পঞ্চাশ হাজারের পুরস্কার। কী ভাবছেন, খুঁজবেন নাকি!  

Updated By: Apr 14, 2016, 09:57 PM IST
বাদশাহকে খুঁজে দিতে পারলে পঞ্চাশ হাজারের পুরস্কার

ব্যুরো: বাদশাহ মিসিং। এক-দু দিন নয়, নয় নয় করে দু সপ্তাহ হতে চলল। কোথায় গেল, কার সঙ্গে, কী বৃত্তান্ত? কেউ জানে না। যে খোঁজ দেবে, তার অবশ্য পোয়াবারো। খুঁজে দিলেই হাতে চলে আসবে কড়কড়ে পঞ্চাশ হাজারের পুরস্কার। কী ভাবছেন, খুঁজবেন নাকি!  

বাদশাহ ছিল তাঁর প্রাণের ধন। এ বাদশা কিং খান নয়। আর ইনিও শাহরুখ ভক্ত নন। বাদশা  ষাঁড়ের নাম। তাকে হারিয়ে এখন চোখের জলে-নাকের জলে হচ্ছেন বারাণসীর পাণ্ডে সাহেব। এতটাই ভেঙে পড়েছেন মনোজ কুমার পাণ্ডে, যে প্রিয় পোষ্যের জন্য নগদ পঞ্চাশ হাজারের পুরস্কার পর্যন্ত ঘোষণা করে ফেলেছেন।

গঙ্গা-তীরের শহরে এ দেওয়াল, ও দেওয়াল ছেয়ে গিয়েছে বাদশার ছবি সমেত পোস্টারে। পুলিসে অভিযোগ দায়ের হয়েছে। যত রকম ব্যবস্থা করা যায়, আর কি! হাত গুটিয়ে নেই পুলিসও।

দেখে-শুনে অনেকের মজা লাগলেও, ব্যাপারখানা মোটেই মজার নয় মনোজ পান্ডের কাছে। প্রিয় পোষ্যের জন্য জান লড়িয়ে দিচ্ছেন বারাণসীর পান্ডেজি।