রামায়ণ মাস উজ্জাপনের আয়োজন করেনি দল, বিবৃতি দিয়ে জানাল কেরল সিপিএম

রামায়নের ওপর বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজনের খবর খারিজ করলেন কেরলের রাজ্য সম্পাদক কোডিয়ারি বালাকৃষ্ণন। 

Updated: Jul 11, 2018, 09:39 PM IST
রামায়ণ মাস উজ্জাপনের আয়োজন করেনি দল, বিবৃতি দিয়ে জানাল কেরল সিপিএম

নিজস্ব প্রতিবেদন: কেরলে রামায়ন মাস উপলক্ষে কোনও অনুষ্ঠানের আয়োজন করেনি সিপিএম। সংবাদমাধ্যমের একাংশে দলের নামে অপপ্রচার চলছে। কেরল সিপিএম মলয়ালি কারকিডাক্কাম মাসে রামায়নের ওপর বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করতে চলেছে বলে বুধবার সকালে যে খবর পাওয়া গিয়েছিল তা বিবৃতি দিয়ে এভাবেই খারিজ করলেন সিপিএমের রাজ্য সম্পাদক কোডিয়ারি বালাকৃষ্ণন। 

বুধবার সকালে খবর মেলে, ১৭ জুলাই থেকে ১৬ অগাস্ট পর্যন্ত কেরলে রামায়ন মাস হিসাবে উজ্জাপন করবে সিপিএম। মলয়ালি ক্যালেন্ডারের শেষ মাস 'কারকিডাক্কাম'কে রামায়নের মাস হিসাবে উজ্জাপন করেন কেরলের বাসিন্দারা। এবার সেই মাস উজ্জাপনের কর্মসূচি নিয়েছে সিপিএমও। সংস্কৃত পণ্ডিতদের দলীয় কর্মীদের রামায়নের মাহাত্ম্য প্রচারের সিদ্ধান্ত নিয়েছে তারা। গোটা কর্মসূচির প্রধান নিয়োগ করা হয়েছে SFI-এর প্রাক্তন রাজ্য সভাপতি তথা কেরল রাজ্য কমিটির সদস্য শিবদাসনকে।  

খবর সম্প্রচারিত হতেই কেরল সিপিএমের সাধারণ সম্পাদক কোডিয়ারি বালাকৃষ্ণনের তরফে এক বিবৃতি জারি করা হয়। বিবৃতিতে লেখা হয়েছে, এই খবর সম্পূর্ণ ভুল ও উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। কারকিডাক্কামে রামায়নের মাস উজ্জাপনের নামে নিজেদের সাম্প্রদায়িক মতাদর্শ বিস্তার করে থাকে আরএসএস। সিপিএমের এমন কোনও পরিকল্পনা নেই। 

বালাকৃষ্ণন জানিয়েছেন, সাম্প্রদায়িক শক্তি কী ভাবে রামায়নের অপব্যাখ্যা করছে তা তুলে ধরবে সংস্কৃত সংঘম নামে সংস্কৃত পণ্ডিতদের একটি সংগঠন। ওই সংগঠনের সঙ্গে সিপিএমের কোথাও কোনও যোগাযোগ নেই। আর তারা 'রামায়ন মাস' নামে কোনও অনুষ্ঠানসূচি ঘোষণা করেছে বলেও জানা নেই। তার পরও সংবাদমাধ্যমের একটি অংশ অপপ্রচারে লেগেছে। 

সংস্কৃতি সঙ্ঘম নামে ওই সংগঠনের সঙ্গে সিপিএমের কোনও যোগাযোগ নেই বলেও দাবি করলেও বিবৃতিতে কোদিয়ারি বালাকৃষ্ণন লিখেছেন, রামায়ণ মাস উজ্জাপন করা হবে বলে এমন কোনও কর্মসূচি তারা গ্রহণ করেনি। 

উল্লেখ্য,  জন্মাষ্টমীতে গোটা কেরলজুড়ে মিছিল করেছিল সিপিএম। গত ৫ দশক ধরে কেরলে কৃষ্ণ জন্মাষ্টমীর মিছিল করে আরএসএস।

আরও পড়ুন- অযোধ্যায় সরযূ তীরে কোরাণ পাঠের অয়োজন আরএসএসের