হাত-পা বাঁধা অবস্থায় গোয়াল ঘর থেকে উদ্ধার অন্ত:সত্ত্বা!

পুলিশ সূত্রে খবর, ৩১ মে রাত থেকেই নিখোঁজ ছিলেন পাঁচ মাসের ২৮ বছরের এই অন্ত:সত্ত্বা। ১ জুন মহিলার বাবা স্থানীয় থানায় এফআইআর দায়ের করেন।

Updated By: Jun 4, 2018, 09:34 AM IST
হাত-পা বাঁধা অবস্থায় গোয়াল ঘর থেকে উদ্ধার অন্ত:সত্ত্বা!

নিজস্ব প্রতিবেদন: তিন দিন পর অবশেষে গোয়ালঘর থেকে হাত-পা বাঁধা অবস্থায় নিখোঁজ অন্ত:সত্ত্বাকে উদ্ধার করল পুলিশ। শনিবার রাত ৮টা নাগাদ ঘটনাটি ঘটেছে নয়ডার সেক্টর ৩৯ থানা সংলগ্ন ছলেরা গ্রামে।

আরও পড়ুন: সবার ‘অলক্ষে’ নবজাতককে চার্চের দরজায় নামিয়ে দিয়ে এল বাবা, তারপর......

পুলিশ সূত্রে খবর, ৩১ মে রাত থেকেই নিখোঁজ ছিলেন পাঁচ মাসের ২৮ বছরের এই অন্ত:সত্ত্বা। ১ জুন মহিলার বাবা স্থানীয় থানায় এফআইআর দায়ের করেন। অন্ত:সত্ত্বার বাবা পুলিশকে জানান, ২০১৭-র ডিসেম্বরে বিয়ে হয় তাঁর মেয়ের। পন বাবদ ২০ লক্ষ টাকা দাবি করে পাত্রপক্ষ। পাত্রপক্ষের চাহিদা মতো নানা আসবাব ও নগদ সাড়ে ১৫ লক্ষ টাকা দেওয়া হয়। কিন্তু বাকি টাকার জন্য বিয়ের এক মাস পর থেকেই মেয়ের উপর নির্যাতন শুরু হয়।

আরও পড়ুন: সরকারি হোমে যৌন নির্যাতনের শিকার শিশুকন্যারা

অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত শুরু করে পুলিশ। নয়ডার সেক্টর ৩৯ থানার এসএইচও অনিল কুমার সাহি জানান, মহিলাকে উদ্ধার করে নিকটবর্তী কৈলাস হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সেখানে আইসিএউ-তে তাঁর চিকিত্সা চলছে। আক্রান্তের শ্বশুর, শাশুড়ি-সহ মোট তিন জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ধৃতদের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৪৯৮ এ ধারায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। মহিলার স্বামী পলাতক।