মশা মারার পর আরামে ঘুমাবেন না গুনবেন, বালাকোট প্রসঙ্গে ভি কে সিং

এ দিন টুইটে বেশ মজার ছলে বি কে সিং লেখেন, প্রচুর মশা উত্পাত হয়েছিল রাত সাড়ে ৩টে নাগাদ। তাদের নিধন করতে হিট (কীটনাশক) ব্যবহার করি

Updated By: Mar 6, 2019, 05:15 PM IST
মশা মারার পর আরামে ঘুমাবেন না গুনবেন, বালাকোট প্রসঙ্গে ভি কে সিং
ফাইল চিত্র

নিজস্ব প্রতিবেদন: পাক মাটিতে এয়ার স্ট্রাইক হয়েছে কি না তার থেকে প্রশ্ন আরও জোরালো হচ্ছে কত জঙ্গির মৃত্যু হয় ওই হামলায়? এই প্রশ্নে দফায় দফায় তোপ দাগছেন বিরোধীরা। তা সামাল দিতে নানা উপমায় বালাকোট হামলার ব্যাখ্যা দিচ্ছেন বিজেপি নেতারাও। গত কাল স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিংহ বলেন, যে ৩০০ মোবাইলের টাওয়ারের হদিশ মিলেছে, তা কি গাছেরা ব্যবহার করছিল? আবার, আজ জঙ্গির মৃত্যুর সংখ্যার সঙ্গে মশা গোনার তুলনা করেন বিদেশ প্রতিমন্ত্রী তথা অবসরপ্রাপ্ত সেনা প্রধান বিজয় কুমার সিং।

এ দিন টুইটে বেশ মজার ছলে বি কে সিং লেখেন, প্রচুর মশা উত্পাত হয়েছিল রাত সাড়ে ৩টে নাগাদ। তাদের নিধন করতে হিট (কীটনাশক) ব্যবহার করি। এরপর কি মশা গুনবো না শুতে যাব? উল্লেখ্য, পুলওয়ামা নাশকতার জবাবে পাক মাটিতে জঙ্গি প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে গত ২৬ ফেব্রুয়ারি হামলা চালায় বায়ুসেনা। সময় ছিল রাত সাড়ে ৩টে নাগাদ। এরপর সাংবাদিক বৈঠকে বিদেশসচিবের বিবৃতিতে উঠে আসে ওই হামলায় এক ঝাঁক জঙ্গি খতম হয়। এর মধ্যে মাসুদ ঘনিষ্ঠ বেশ কয়েকজন কম্যান্ডারও ছিল বলে দাবি করা হয়।

আরও পড়ুন- ফের প্রকাশ্যে পাকিস্তানের মিথ্যাচার, ভারতের যুদ্ধবিমানকে আক্রমণে ৪-৫টি মিসাইল ছুঁড়েছিল F-16

তবে, বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে বলা হয় কমপক্ষে ৩০০ জঙ্গি নিহত হয়েছে। কিন্তু আনুষ্ঠানিকভাবে এমন কোনও সংখ্যা কথা বলা হয়নি সরকার এবং বায়ুসেনার তরফে। এমনকি বায়ুসেনার প্রধান বীরেন্দ্র সিং ধানোয়া বলেন, লক্ষ্যভেদ করা কাজ বায়ুসেনার, সংখ্যা গোনা নয়। তার হিসেব একমাত্র সরকার দিতে পারে। জঙ্গি নিহতের সংখ্যার দাবি করেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি বলেন, দেশকে সত্য জানানো উচিত সরকারের। এই প্রশ্নে প্রতিরক্ষামন্ত্রী নির্মলা সীতারামন বলেন, বিদেশ সচিব আগেই জানিয়েছে কত জঙ্গি মারা গিয়েছে হামলায়। তবে, সঠিক সংখ্যার হিসেব দেননি বিদেশসচিব বিজয় গোখেল।

আরও পড়ুন- নয়াদিল্লির সিজিও কমপ্লেক্সে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড

জঙ্গি মৃত্যুর সংখ্যাতত্ত্ব নিয়ে মুখ খোলেন বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ। রাজনৈতিক মঞ্চে অমিত শাহ দাবি করেন, কমপক্ষে ৩০০ জঙ্গি নিহত হয়েছে। সরকার যেখানে নিহতের সংখ্যা স্পষ্ট করছে না অমিতের গলায় এমন দাবি শুনে আরও সরব হন বিরোধীরা। সামাল দিতে নামেন বিদেশপ্রতিমন্ত্রী বি কে সিং। তিনি বলেন, এটি কোনও সঠিক সংখ্যা নয়, তবে আনুমানিক হিসেব বলেছে। সরকারি সংস্থা এনআরটিও দাবি করেছে, হামলার আগে বালাকোটে জঙ্গি প্রশিক্ষণ শিবিরে কমপক্ষে ৩০০ মোবাইল টাওয়ারের সংকেত মেলে। গোয়েন্দা তথ্যের উপর নির্ভর করেই নির্দিষ্ট লক্ষ্যে হামলা চালায় বায়ুসেনা। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী রাজনাথ সিং বিরোধীদের কটাক্ষ করে বলেন, ওই ৩০০ টাওয়ার কি গাছেরা ব্যবহার করছিল? এ দিন বি কে সিংহের টুইটে স্পষ্ট, সরকারের তরফে,
সঠিক সংখ্যা দেওয়া কখনওই দেওয়া সম্ভব নয়।