close

News WrapGet Handpicked Stories from our editors directly to your mailbox

ওখানেই বিদ্যাসাগরের পঞ্চধাতুর মূর্তি পুনঃপ্রতিষ্ঠা করা হবে, মমতাকে একহাত নিয়ে জানালেন মোদী

আজ আরও এক বার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকারকে এক হাত নিয়ে মোদী অভিযোগ করেন, উনি তাঁকে প্রধানমন্ত্রী হিসাবে মানেন না। 

Updated: May 16, 2019, 12:21 PM IST
ওখানেই বিদ্যাসাগরের পঞ্চধাতুর মূর্তি পুনঃপ্রতিষ্ঠা করা হবে, মমতাকে একহাত নিয়ে জানালেন মোদী
ফাইল চিত্র

নিজস্ব প্রতিবেদন: উত্তর প্রদেশের মৌ থেকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বার্তা, বিদ্যাসাগরের পঞ্চধাতুর মূর্তি পুনঃপ্রতিষ্ঠা করে তৃণমূলকে কড়া জবাব দেবে বিজেপি। বিদ্যাসাগর কলেজের একই জায়গায় ওই মূর্তি বানানো হবে বলে এ দিন দাবি করেন নরেন্দ্র মোদী। আজ আরও এক বার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকারকে এক হাত নিয়ে মোদী অভিযোগ করেন, উনি তাঁকে প্রধানমন্ত্রী হিসাবে মানেন না। তাঁর আরও বিস্ফোরক অভিযোগ, হিন্দুস্তানের প্রধানমন্ত্রীকে না মানলেও, পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীকে প্রধানমন্ত্রী হিসাবে মানেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

উত্তর প্রদেশের মাটিতে দাঁড়িয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের তুলোধনা করেন নরেন্দ্র মোদী। তাঁর অভিযোগ, পশ্চিম মেদিনীপুর, ঠাকুরনগর, কোচবিহারে তৃণমূলের গুন্ডারা হামলা চালিয়েছে। মমতার জমানায় পশ্চিমবঙ্গে অরজাকতা তৈরি হয়েছে বলে দাবি করেন তিনি। মঙ্গলবার অমিত শাহের রোডশোয়ে ব্যাপক উত্তেজনার পিছনে মমতা সরকারের ইন্ধন রয়েছে বলে নরেন্দ্র মোদীর অভিযোগ। তৃণমূলের গুন্ডারাই বিদ্যাসাগরের আবক্ষ মূর্তি ভেঙেছে বলে জানান মোদী। পাশাপাশি নরেন্দ্র মোদীর প্রতিশ্রুতি, তাদের সরকার যথা স্থানেই পঞ্চধাতুর মূর্তি পুনঃপ্রতিষ্ঠা করবে। তৃণমূলকে এভাবেই কড়া জবাব দেবেন বলে দাবি করেন তিনি। মোদী আশঙ্কা করে বলেন, “আজ দমদমে জনসভা রয়েছে। দেখা যাক দিদি সে র্যালি করতে দেন কি না!”

আরও পড়ুন- পরিকল্পনা করেই মমতাকে নিশানা করেছেন মোদী-অমিত জুটি: মায়াবতী

মায়াবতীর হাত ধরেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্রসঙ্গ টেনে আনেন নরেন্দ্র মোদী। গতকাল নির্বাচনী প্রচার একদিন কমিয়ে আনার সিদ্ধান্ত নেয় নির্বাচন কমিশন। পাশাপাশি, স্বরাষ্ট্র সচিবের অদবদলও করা হয়। কমিশনের এই সিদ্ধান্তে বেজায় খাপ্পা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এ দিন মমতার পাশে দাঁড়িয়েছেন মায়াবতী। মোদীর কটাক্ষ, বহেনজি কুর্সির চিন্তা করে মমতার পাশে দাঁড়িয়েছেন। তিনি ভালভাবেই জানেন, উত্তর প্রদেশ, বিহার-সহ পূর্বাঞ্চলের লোকদের বহিরাগত বলে রাজনীতি করছে মমতার সরকার। পাশাপাশি, সম্প্রতি রাজস্থানের আলওয়ারে গর্ণধর্ষণের ঘটনায় মায়াবতীকে কাঠগড়ায় দাঁড় করান মোদী। বলেন, রাজস্থানে কংগ্রেসের সরকার। আলওয়ারের মতো ঘটনা হওয়া সত্ত্বেও মায়াবতীর সমর্থনে সরকার চলছে।