ভুয়ো খবর ছড়িয়ে কৃষকদের বিভ্রান্ত করা হচ্ছে, কৃষি বিল-বিরোধীদের মোদী

উপলক্ষ ছিল বিহারের কোশী নদীর সেতু উদ্বোধন।  ওই অনুষ্ঠানেই কৃষকদের কথা টেনে আনলেন প্রধানমন্ত্রী।

Updated By: Sep 18, 2020, 07:47 PM IST
ভুয়ো খবর ছড়িয়ে কৃষকদের বিভ্রান্ত করা হচ্ছে, কৃষি বিল-বিরোধীদের মোদী

নিজস্ব প্রতিবেদন: কৃষি সংক্রান্ত বিলের প্রতিবাদে গতকাল, বৃহস্পতিবার কেন্দ্রীয় মন্ত্রিত্ব থেকে ইস্তফা দিয়েছেন হরসিমরত বাদল। সরব হয়েছে বিরোধীরাও। শুক্রবার বিলের সমর্থনে মুখ খুললেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তাঁর বক্তব্য,''কৃষকরা ক্ষতিগ্রস্ত হবেন বলে ভুল তথ্য ছড়ানো হচ্ছে।'' কৃষিক্ষেত্রে সংস্কারকে ঐতিহাসিক আখ্যা দিয়ে মোদীর বার্তা, এটা কৃষকদের স্বার্থ সুরক্ষিত করবে।   

উপলক্ষ্য ছিল, বিহারের কোশী নদীর সেতু উদ্বোধন। ওই অনুষ্ঠানেই কৃষকদের কথা টেনে আনলেন প্রধানমন্ত্রী। কৃষিক্ষেত্রে সংস্কার আনতে ৩টি বিল এনেছে তাঁর সরকার। যা কৃষকবিরোধী আখ্যা দিয়েছে বিরোধীরা। বৃহস্পতিবার খাদ্যপ্রক্রিয়াকরণ মন্ত্রক থেকে পদত্যাগ করেন জোটশরিক শিরোমণি অকালি দলের হরসিমরত বাদল। এদিন নরেন্দ্র মোদী বলেন, ''কৃষকরা ফসলের ন্যায্য দাম পাবেন না বলে মিথ্যা প্রচার চলছে। কিন্তু ওরা ভুলে যাচ্ছে দেশের কৃষকরা সচেতন।'' 

লকডাউনের মাঝে কৃষি ক্ষেত্রে সংস্কাররের উদ্দেশ্যে ৩টি অধ্যাদেশ জারি করে কেন্দ্রীয় সরকার। বৃহস্পতিবার লোকসভায় তিনটি বিল পাস হয় লোকসভায়। এবার সেগুলি পেশ হবে রাজ্যসভায়। এদিন প্রধানমন্ত্রী বলেন,''চাল, গমের মতো ফসল চাষিদের থেকে সরকার কিনবে না, এমন ভুয়ো খবর রটানো হচ্ছে। এটা সম্পূর্ণ মিথ্যা, ভুল ও কৃষকদের বিভ্রান্ত করার চেষ্টা। ন্যূনতম সহায়ক মূল্য যাতে কৃষকরা পান, তা নিশ্চিত করতে বদ্ধপরিকর সরকার।''        

নরেন্দ্র মোদীর বার্তা,''দেশের কৃষকদের উদ্দেশে আবেদন করছি, কৃষি নিয়ে যারা ভুয়ো খবর ছড়াচ্ছে, তাদের থেকে সাবধান থাকুন। ওদের থেকে সতর্ক থাকুন, যারা বিভ্রান্ত করছে, প্ররোচনা দিচ্ছে। পুরনো ব্যবস্থা বহাল রেখে আপনাদের অবস্থার ফায়দা তুলতে চাইছে ওরা। কয়েক দশক ধরে ক্ষমতায় থেকে কৃষকদের নিয়ে অনেক কথা বলেছে, কিন্তু কাজের কাজ কিছু করেনি।'' 

আরও পড়ুন- কাছে থেকে দূর রচনার এক কমপ্লেক্স ক্রমশ ছেয়ে ফেলছে নাগরিক জীবন